default-image

ফরিদপুরের চরভদ্রাসনে ভারপ্রাপ্ত উপজেলা চেয়ারম্যান মোতালেব মোল্লার উদ্যোগে আয়োজিত মানববন্ধন সাংসদ মুজিবর রহমান ওরফে নিক্সন চৌধুরীর সমর্থকদের বাধায় পণ্ড হয়ে গেছে। ফরিদপুর জেলা সদর থেকে চরভদ্রাসনসহ পাঁচটি উপজেলার দেওয়ানি ও ফৌজদারি আদালত ভাঙ্গায় স্থানান্তরের উদ্যোগের প্রতিবাদে আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টায় এ মানববন্ধন হওয়ার কথা ছিল।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মোতালেব মোল্লা চরভদ্রাসন আদালত ভাঙ্গায় স্থানান্তরের প্রক্রিয়ার বিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি আহ্বান করেন। সকাল ১০টা থেকে এ কর্মসূচি শুরু হওয়ার কথা ছিল। এ জন্য সকাল ১০টার দিকে মোতালেব মোল্লা তাঁর সমর্থকদের নিয়ে উপজেলা বাজার এলাকায় সমবেত হন। তিনি মাইকে সবাইকে মানববন্ধন কর্মসূচিতে শরিক হওয়ার জন্য অনুরোধ জানাতে থাকেন।

ভাঙ্গা, সদরপুর ও চরভদ্রাসন নিয়ে গঠিত ফরিদপুর-৪ আসনের সাংসদ নিক্সন চৌধুরীর সমর্থক উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মুরাদ মোল্লা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার আলী মোল্লার ভাই লিয়াকত মোল্লা, গিয়াস মোল্লাসহ ২০–২৫ জন ব্যক্তি সকাল সোয়া ১০টার দিকে সেখানে উপস্থিত হন। তাঁরা মানববন্ধন কর্মসূচি পালতে বাধা দেন।

বিজ্ঞাপন

নিক্সনের সমর্থকেরা সেখানে বলেন, চরভদ্রাসন আদালত ফরিদপুরেই থাকবে, ভাঙ্গায় যাবে না এবং সাংসদ নিক্সন আদালত স্থানান্তরের জন্য কোনো ডিও লেটার দেননি। তাই এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা যাবে না। সাংসদ চান চরভদ্রাসনে এ জাতীয় কোনো কর্মসূচি পালিত না হোক। এ জন্য এ মানববন্ধন করা যাবে না।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ওই সময় সাংসদের সমর্থকেরা মানববন্ধনের জন্য তৈরি করা ব্যানারটি কেড়ে নেন এবং উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের কাছ থেকে মাইক ছিনিয়ে নেন।

উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মোতালেব মোল্লা বলেন, ‘আমরা শান্তিপূর্ণভাবে কর্মসূচি পালন করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সাংসদের সমর্থকদের বাধার মুখে তা করতে পারিনি।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমরা কোনো “হিচিংয়ে” যেতে চাইনি। তাই কর্মসূচি স্থগিত করেছি। পরবর্তী সময়ে আমরা আমাদের করণীয় নির্ধারণ করব।’

মানববন্ধনে বাধা দেওয়ার অভিযোগ অস্বীকার করে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মুরাদ মোল্লা বলেন, ‘আমাদের জানামতে, চরভদ্রাসন আদালত ফরিদপুর সদরেই থাকবে। ওই আদালত যে ভাঙ্গায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছে, এ–জাতীয় কোনো কাগজ আয়োজকেরা দেখাতে পারেনি। তাই আমরা পরামর্শ দিয়েছি, ডকুমেন্ট না নিয়ে কেন প্রতিবাদ জানাতে হবে।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন