বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গত ৮ সেপ্টেম্বর উচ্চ আদালতের ২৭ নম্বর বেঞ্চের বিচারপতি খসরুজ্জামান ও বিচারপতি মাহবুব হাসান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে কাউছারের নাম ঘোষণা করতে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেন ইসিকে। এর পরিপ্রেক্ষিতে গত ২১ সেপ্টেম্বর ইসি একটি গেজেট প্রকাশ করে চরভদ্রাসন উপজেলা পরিষদ নির্বাচন বাতিল ঘোষণাসংক্রান্ত আদেশটি বাতিল ঘোষণা করে। একই সঙ্গে কাউছারকে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ঘোষণা করা হয়।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা হাবিবুর রহমান বলেন, উচ্চ আদালত নির্বাচন কমিশনের বাতিলের সিদ্ধান্ত নাকচ করে গেজেট প্রকাশের নির্দেশ দেন। নির্বাচন কমিশন আপিল না করে গেজেট প্রকাশ করে।

গত বছরের ১০ অক্টোবর চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচনে ভোটের ফল ঘোষণার পর ফরিদপুর-৪ আসনের স্বতন্ত্র সাংসদ মুজিবর রহমান ওরফে নিক্সন চৌধুরী জেলা প্রশাসকের বিরুদ্ধে নির্বাচনে অসহযোগিতার অভিযোগ এনে তাঁকে ‘রাজাকার’ হিসেবে উল্লেখ করেন।

ওই দিনই নির্বাচনে দায়িত্ব পালনকারী ভাঙ্গার তৎকালীন এসিল্যান্ড আল-আমিনের ভূমিকা নিয়ে ইউএনও জেসমিন সুলতানাকে অশালীন ভাষায় গালিগালাজ করেন নিক্সন। এর একটি অডিও পরে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে।

ঘটনাটি বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশের পর সমালোচনা শুরু হয়। পরে ১৪ অক্টোবর ফরিদপুর জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা নওয়াবুল ইসলাম বাদী হয়ে সাংসদ নিক্সনকে আসামি করে চরভদ্রাসন থানায় একটি মামলা করেন। পরে ওই নির্বাচনের ফল বাতিল ঘোষণা করেন।

আজ দায়িত্ব গ্রহণের পর মো. কাউছার বলেন, বহু বাধা পেরিয়ে অবশেষে তিনি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন। চরভদ্রাসনকে একটি আধুনিক উপজেলা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে কাজ করবেন তিনি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন