default-image

ঢাকা-বেনাপোল হাইওয়ে সড়কের কাজলা নদীর ওপর নড়াইলের তুলারামপুর সেতুর মাঝখানে একটি অংশ ধসে পড়েছে। ফলে ঢাকা-বেনাপোল, ঢাকা-যশোর ও লোহাগড়া-নড়াইল-যশোর-বেনাপোল রুটের যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে ওই সেতু ধসের ঘটনা ঘটে। এরপর সেতুর দুই পাশে অসংখ্য যানবাহন আটকা পড়ে। এতে ভোগান্তির শিকার হন যাত্রীরা। বিপাকে পড়ে পণ্যবাহী যানবাহন।

প্রত্যক্ষদর্শী ও হাইওয়ে পুলিশ সদস্য সূত্র জানায়, পাথর বোঝাই বড় ট্রাক সেতুর ওপর দিয়ে যাওয়ার পরই ওই ধসের ঘটনা ঘটে। সেতুটির মাঝখানে প্রায় পাঁচ ফুট অংশের কংক্রিট খসে পড়েছে। এ ছাড়া পূর্ব পাশের স্ল্যাবের উত্তর দিকের কার্নিশ বসে গেছে। এতে সেতুটি খুবই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে।

তুলারামপুর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) সোহরাব হোসেন বলেন, ঘটনার পর থেকে বাস, ট্রাকসহ বড় যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। শুধু ভ্যান ও রিকশা চলতে দেওয়া হচ্ছে। প্রাইভেট কারকে যাত্রী নামিয়ে চলতে দেওয়া হচ্ছে। মাইক্রোবাস বা এর চেয়ে বড় যানবাহন চলাচল করতে দেওয়া হচ্ছে না। যশোর ও নড়াইল জেলার যানবাহনকে বিকল্প পথ ব্যবহার করতে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
default-image

এ ব্যাপারে সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের নড়াইলের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আশরাফুজ্জামান বলেন, স্টিলের প্লেট অনার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। এটি লাগাতে এক সপ্তাহ লাগতে পারে। সেটি লাগানোর পর কিছুটা ঝুঁকিমুক্ত হবে। তারপরও বড় বাস, ট্রাকসহ অন্য বড় পরিবহনকে এর ওপর দিয়ে চলতে দেওয়া যাবে না। ঢাকা-যশোর যাতায়াতের জন্য বিকল্প হিসেবে ফরিদপুর-মাগুরা সড়ক ও গোপালগঞ্জ-মোল্লারহাট সড়ক ব্যবহার করার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। আগামী এক মাসের মধ্যে পাশেই নির্মাণাধীন চার লেনের সেতুটি ব্যবহারের জন্য খুলে দেওয়া সম্ভব হবে। এরপর সমস্যা মিটবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন