default-image

নড়াইল সদর উপজেলার বাঁশগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলামকে দুর্নীতির অভিযোগে সাময়িক বরখাস্ত করেছে স্থানীয় সরকার বিভাগ। স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের জ্যেষ্ঠ সহকারী সচিব মো. আবু জাফর রিপন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে গতকাল বৃহস্পতিবার ওই সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেওয়া হয়।

ওই প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে, এলজিএসপি-৩ প্রকল্পের জেলা ফ্যাসিলিটেটর (ডিএফ) মো. আবদুল হালিমের স্বাক্ষর ও সিল জালিয়াতি করে অর্থ আত্মসাতের চেষ্টা করেন ইউপি চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলাম। অভিযোগটি স্থানীয় তদন্তে প্রমাণিত হয়। জেলা প্রশাসক ওই ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন ২০০৯ অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করেছেন। তাঁর ওই অপরাধমূলক কার্যক্রম পরিষদসহ জনস্বার্থ পরিপন্থী হওয়ায় তাঁকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. ইয়ারুল ইসলাম ওই ইউপি চেয়ারম্যানকে সাময়িক বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করে প্রথম আলোকে জানান, ২০১৮-১৯ অর্থবছরের এলজিএসপি-৩–এর বিভিন্ন প্রকল্পের অর্থ আত্মসাৎ করতে ডিএফ মো. আবদুল হালিমের স্বাক্ষর ও সিল জালিয়াতি করেন চেয়ারম্যান। এ নিয়ে ওই ইউপির সচিব মো. তৌফিক রহমান ও মহিলা ইউপি সদস্য কবিতা বেগম জেলা প্রশাসকের কাছে লিখিত অভিযোগ করেন। তদন্তে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বিষয়টি স্থানীয় সরকার বিভাগকে জানানো হয়।

এ ব্যাপারে চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন, ‘এসব অর্থ তোলার কাজটি করেন ইউপি সচিব। এ ব্যাপারে তিনি জানেন। আমি কিছু বলতে পারব না।’

এ বিষয়ে সচিব মো. তৌফিক রহমানের সঙ্গে কথা বলতে চাইলে তিনি কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। ইউপি সদস্য কবিতা বেগমের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাঁকে পাওয়া যায়নি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন