বিশ্বজিৎ সেনের পরিবারের উদ্ধৃতি দিয়ে পুলিশ জানায়, এই দম্পতি পটিয়ায় চিকিৎসক দেখাতে যাচ্ছিলেন।

পটিয়া কমলমুন্সির হাট এলাকার নিহত রেজাউলের বোন ছানোয়ারা বেগম গতকাল সোমবার রাতে দুর্ঘটনার খবর পেয়ে পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসেন। তিনি বলেন, রৌশনহাট এলাকায় তাঁর আরেক বোনের বাড়িতে পিঠা ও মাংস দিতে যাচ্ছিলেন ভাই।

পটিয়া থানার ওসি রাশেদুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থলে পাঁচজন নিহত হন। ঘটনাস্থল থেকে আহত অবস্থায় আটজনকে পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পর আরেকজনের মৃত্যু হয়।

পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক আরিফুল ইসলাম বলেন, আহত ব্যক্তিদের মধ্যে আরিফুল ইসলাম, শাহ আলম ও রিদোয়ারুল হক নামের তিনজনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন