বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য দেন পদ্মা সেতু রক্ষা কমিটির আহ্বায়ক জামাল মাদবর, সদস্য শোহানুর রহমান, বরকত মোল্যা, হাসিনা মমতাজ, নারী নির্যাতন দমন চাঁদনী মঞ্চের সদস্যসচিব পলাশ খান প্রমুখ। বক্তারা বলেন, পদ্মা সেতুর সঙ্গে মাদারীপুরের শিবচরের বাংলাবাজার-মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া নৌপথে চলাচলকারী ফেরির পরপর পাঁচবার ধাক্কা লাগে। বিআইডব্লিউটিএ ও বিআইডব্লিউটিসির সংশ্লিষ্ট দপ্তর ও সার্ভে বিভাগ থেকে সাত্তার মাদবর মঙ্গল মাঝি ঘাট-শিমুলিয়া নৌপথ সার্ভে করা হয়েছে। ওই ঘাট চালু হলে নৌপথের জাজিরার নাওডোবা পদ্মা সেতুর চ্যানেল ধরে ভাটিতে ফেরিগুলো চলাচল করবে। ওই চ্যানেল দিয়ে ফেরিগুলো লৌহজং টার্নিং হয়ে শিমুলিয়া যাতায়াত করবে। তখন ফেরিগুলো অন্তত তিন কিলোমিটার এলাকায় পদ্মা সেতুর পূর্ব পাশ দিয়ে চলাচল করবে। তখন ফেরিগুলো সেতুর পিলার থেকে ৩০০ থেকে ৫০০ মিটার দূরত্ব বজায় রেখে চলবে। তাই খুব দ্রুত ঘাট সরিয়ে সেখানে সাত্তার মাদবর মঙ্গল মাঝির ঘাট চালু করতে হবে।

বক্তারা বলেন, পদ্মা সেতুর সঙ্গে বাংলাবাজার-মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া নৌপথে চলাচলকারী ফেরির পরপর পাঁচবার ধাক্কা লাগে। তাই খুব দ্রুত ঘাট সরিয়ে সাত্তার মাদবর মঙ্গল মাঝির ঘাট চালু করতে হবে।

বিআইডব্লিউটিএ ও বিআইডব্লিটিসি সূত্র জানায়, সর্বশেষ মঙ্গলবার সকালে রো রো ফেরি বীরশ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীরের মাস্তুল সেতুর ১ ও ২ নম্বর পিলারের মধ্যে থাকা স্প্যানে ধাক্কা দেয়। এর আগে দুই মাসে চারবার পদ্মা সেতুর পিলারে ফেরির ধাক্কা লাগে। এর পরিপ্রেক্ষিতে পদ্মায় স্রোত বেড়ে যাওয়ায় মাদারীপুরের বাংলাবাজার ও মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া নৌপথে ১৮ আগস্ট থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ রয়েছে।

স্রোতের তীব্রতা না কমা পর্যন্ত ওই নৌপথে ফেরি ছাড়া হবে না। তবে জরুরি সেবা নিশ্চিত করতে শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার সাত্তার মাদবর মঙ্গল মাঝির ঘাট এলাকায় নতুন একটি ফেরিঘাট নির্মাণ করেছে বিআইডব্লিউটিএ। সেখানে রো রো ফেরির নতুন একটি পন্টুন বসানো হয়েছে।

বাংলাবাজার-শিমুলিয়া নৌপথের দূরত্ব ১০ কিলোমিটার। পারাপার হতে সময় লাগত ১ ঘণ্টা ৪০ মিনিট থেকে ২ ঘণ্টা। এখন সাত্তার মাদবর মঙ্গল মাঝির ঘাট-শিমুলিয়া নৌপথের দূরত্ব ৮ কিলোমিটার। পারাপারে সময় লাগবে ১ ঘণ্টা থেকে ১ ঘণ্টা ২০ মিনিট। নতুন এ ঘাটে ছোট ব্যক্তিগত গাড়ি, অ্যাম্বুলেন্স, সরকারি দপ্তরের জরুরি গাড়ি পারাপার করা হবে। এ ঘাটে তিন থেকে চারটি কে-টাইপ ফেরি চলাচল করবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন