বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত মঙ্গলবার রাতে নাসির বাড়ির পাশে বিলে মাছ ধরতে যান। কিন্তু রাতে তিনি আর বাড়িতে ফিরে আসেননি। তাঁকে বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করেও পাওয়া যায়নি। পরদিন গতকাল বুধবার নাসিরের বাবা পাংশা থানায় তাঁর নিখোঁজের বিষয়ে সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন। আজ সকালে বিলের মধ্যে তাঁর মরদেহ দেখতে পান এলাকার লোকজন। খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। লাশের মুখে ও শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সরিষা ইউপির চেয়ারম্যান আজমল আল বাহার বলেন, নাসিরের বাড়ি সরিষা ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী এলাকায়। তিনি বাড়িতে কাজকর্ম করতেন।

পাংশা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মাসুদুর রহমান দুপুরে বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্ত করার প্রক্রিয়া চলছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, তাঁকে হত্যা করা হয়েছে। স্থানীয় ব্যক্তিদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, নাসির উদ্দিন নিরীহ প্রকৃতির মানুষ ছিলেন। তাঁর সঙ্গে স্থানীয় কারও কোনো শত্রুতা ছিল না।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন