default-image

মানিকগঞ্জ সদর উপজেলায় একটি পোশাক কারখানার এক পরিচ্ছন্নতাকর্মীকে পায়ুপথে বাতাস দিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়।
ওই কর্মীর নাম মো. জুলহাস (৩৯)। তিনি জেলা সদরের গোলড়া চরখণ্ড এলাকায় অবস্থিত আকিজ টেক্সটাইল মিল নামের একটি পোশাক কারখানার পরিচ্ছন্নতাকর্মী ছিলেন। তিনি সাটুরিয়া উপজেলার কান্দাপাড়া গ্রামের আবদুস সামাদের ছেলে।

বিজ্ঞাপন

এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে থানায় মামলা হয়েছে। ওই কারখানার চার কর্মীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তাঁরা হলেন বিজয় হোসেন, সোহেল রানা, লাবু মিয়া ও সমির আলী।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে কাজের ফাঁকে ওই চার সহকর্মী কারখানার কম্প্রেশর যন্ত্র দিয়ে পায়ুপথে বাতাস ঢুকিয়ে দিলে জুলহাস গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাঁকে জেলা সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নেওয়া হয়। সেখানে দায়িত্বপ্রাপ্ত চিকিৎসক তাঁকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন।

বিজ্ঞাপন

রাতেই তাঁকে ঢাকার সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার বিকেল চারটার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়। পরে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে আনা হয়।

বিজ্ঞাপন

এ ব্যাপারে চেষ্টা করেও কারখানা কর্তৃপক্ষের বক্তব্য পাওয়া যায়নি। আজ শুক্রবার সকালে কারখানার মহাব্যবস্থাপক (প্রশাসন) হুমায়ুন কবিরের মুঠোফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তিনি ধরেননি।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) ভাস্কর সাহা বলেন, এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে জুলহাসের স্ত্রী জুলেখা বেগম বাদী হয়ে কারখানার ওই চার কর্মীর বিরুদ্ধে থানায় হত্যা মামলা করেছেন। তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

মন্তব্য পড়ুন 0