default-image

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় নিজ বাড়ির সামনে এক ব্যবসায়ীকে গুলি করে সোনা ও নগদ টাকা ছিনতাই করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার রাত সোয়া আটটার দিকে উপজেলার তুষখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

গুলিবিদ্ধ ওই ব্যবসায়ীর নাম উত্তম কর্মকার (৫২)। তিনি উপজেলার তুষখালী বাজারের উত্তম জুয়েলার্সের স্বত্বাধিকারী। তাঁর বাঁ পা গুলিবিদ্ধ হয়েছে। তাঁকে বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামুন (২৫) নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার রাতে তুষখালী বাজারের দোকান বন্ধ করে উত্তম কর্মকার ও তাঁর স্ত্রী রিকশা করে বাড়ি ফিরছিলেন। তুষখালী বাজার থেকে আধা কিলোমিটার দূরে উত্তম কর্মকারের বাড়ির সামনে আগে থেকে ওত পেতে ছিলেন দুই থেকে তিন যুবক। ওই দম্পতি রিকশা থেকে বাড়ির সামনে নামার পর যুবকেরা উত্তম কর্মকারের সঙ্গে থাকা তিন ভরি সোনা ও নগদ ৩৫ হাজার টাকাভর্তি ব্যাগ ছিনিয়ে নেন। এ সময় উত্তম কর্মকার যুবকদের কাছ থেকে ব্যাগ উদ্ধারের চেষ্টা করলে তাঁরা পিস্তল দিয়ে গুলি ছোড়েন। এতে তিনি বাঁ পায়ে গুলিবিদ্ধ হন। এরপর দুর্বৃত্তরা সোনা ও টাকা নিয়ে মোটরসাইকেলে করে পালিয়ে যান। স্থানীয় লোকজন উত্তম কর্মকারকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান।হাসপাতালের চিকিৎসকের পরামর্শে তাঁকে বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

বিজ্ঞাপন

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা ফেরদৌস ইসলাম বলেন, গুলিতে উত্তম কর্মকারের বাঁ পায়ের হাড় ভেঙে গেছে। তাঁর পায়ে বিদ্ধ হওয়া গুলি বের করার জন্য বরিশালের শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ জেড এম মাসুদুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ রাতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় মামুন নামের এক যুবককে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন