সাজা পাওয়া বর খন্দকার রায়হান দেলদুয়ার উপজেলার পাথরাইল গ্রামের খন্দকার সোলায়মানের ছেলে। ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা যায়, কনের বাড়িতে দুপুর থেকে বিয়ের আয়োজন চলছিল। খবর পেয়ে বিকেলে ভ্রাম্যমাণ আদালত কনের বাড়িতে পৌঁছে বিয়ে বন্ধ করে দেন। পাশাপাশি বরকে ও কনের নানিকে জরিমানা করা হয়েছে।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জাকিয়া সুলতানা প্রথম আলোকে বলেন, কনের পরিবারকে বাল্যবিবাহের কুফল সম্পর্কে বুঝিয়ে আসা হয়েছে। ১৮ বছর পূর্ণ না হওয়া পর্যন্ত ওই ছাত্রীকে বিয়ে দেবে না মর্মে মুচলেকা নেওয়া হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন