default-image

ভাই ও ভাবির সঙ্গে থাকে তৃতীয় শ্রেণির এক ছাত্রী। গতকাল সোমবার ভাবিকে নিয়ে ভাই শ্বশুরবাড়িতে যান। রাতে সে একা ছিল বাড়িতে। এই সুযোগে বাড়িতে ঢুকে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করে এক ব্যক্তি। এ ঘটনা ফরিদপুরের নগরকান্দা উপজেলার পুড়াপাড় ইউনিয়নে ঘটেছে। পুলিশ ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে।

বিজ্ঞাপন

গ্রেপ্তার ব্যক্তির নাম করিম কাজী (২২)। এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর ভাই আজ মঙ্গলবার সকালে করিম কাজীর বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছেন।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ওই ছাত্রীর (৮) মা মারা গেছেন। বাবা ঢাকায় কাজ করেন। দুই বোন ও এক ভাইয়ের মধ্যে সে ছোট। তার বড় বোনের বিয়ে হয়ে গেছে। ভাই বিয়ে করেছেন পাশের সালথা উপজেলায়। গতকাল সোমবার তাঁর ভাই তাঁর স্ত্রীকে নিয়ে শ্বশুরবাড়িতে যান। রাতে তার সঙ্গে তার এক চাচাতো বোনের থাকার কথা ছিল। গতকাল রাত সাড়ে আটটার দিকে ওই ছাত্রী ঘরে একাই ছিল। এই সুযোগে করিম কাজী ওই ছাত্রীদের ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করেন। পরে তার চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে করিম কাজী পালিয়ে যান। স্থানীয় লোকজন ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে রাতেই নগরকান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান।

নগরকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সোহেল রানা বলেন, আজ সকালে শারীরিক পরীক্ষার জন্য ওই ছাত্রীকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ কলেজ হাসপাতালের ওয়ান-স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে। ওই ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে বিকেলে করিম কাজীকে আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য পড়ুন 0