বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বিদ্যুৎস্পৃষ্টে মারা যাওয়া ওই ভাইয়ের নাম আবদুল ওয়াদুদ (২৫)। তিনি ময়মনসিংহের গৌরীপুরের ভবানীপুর গ্রামের মো. ইয়াকুব আলীর ছেলে। গতকাল রাতেই ওয়াদুদের লাশ পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

ওয়াদুদের চাচাতো ভাই শাহীন আলম জানান, ওয়াদুদের চাচাতো বোন ইসরাত জাহান ওরফে হাসির বিয়ে আজ শুক্রবার। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গায়েহলুদের অনুষ্ঠান চলছিল। এ সময় বৈদ্যুতিক পাখার সংযোগ দেওয়ার সময় ওয়াদুদ ঘটনাস্থলেই মারা যান।

ওয়াদুদের চাচাতো ভাই শাহীন আরও জানান, ২২ অক্টোবর ওয়াদুদের বড় ভাই আবদুল কুদ্দুস (২৮) ঢাকায় নির্মাণাধীন ভবনে কাজ করার সময় চারতলা থেকে পড়ে মারা যান। সে শোক কাটিয়ে উঠতে না উঠতেই আরেক ছেলের মৃত্যুতে পরিবারটি শোকে মুহ্যমান হয়ে পড়েছে। এ ঘটনায় বারবার মূর্ছা যাচ্ছেন বাবা ইয়াকুব আলী ও মা আমেনা খাতুন। ছেলেকে হারিয়ে তাঁরা নির্বাক হয়ে পড়েছেন। বারবার জ্ঞান হারাচ্ছেন নিহত ওয়াদুদের স্ত্রী পান্না আক্তার।

বিদ্যুৎস্পৃষ্টে ওয়াদুদের মৃত্যু হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গৌরীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা খান আবদুল হালিম সিদ্দিকী। তিনি জানান, এ ঘটনায় আজ শুক্রবার গৌরীপুর থানায় অপমৃত্যু মামলা করেছেন ওয়াদুদের চাচা আইয়ুব আলী।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন