default-image

ফেনী সদর উপজেলার ফরহাদনগর ইউনিয়নের নৈরাজপুর গ্রামে বড়শি দিয়ে মাছ ধরতে গিয়ে নদীতে পড়ে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে এ ঘটনার প্রায় পাঁচ ঘণ্টা পর ডুবুরি দলের তৎপরতায় মহুরী নদী থেকে নাজিম উদ্দিন (২৫) নামের ওই যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ফেনী সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ, এলাকাবাসী ও ফায়ার সার্ভিস সূত্র জানায়, সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার ফরহাদনগর ইউনিয়নের পূর্ব সুলতানপুর গ্রামের রুহুল আমিনের ছেলে নাজিম উদ্দিন মুহুরী নদীতে বড়শি দিয়ে মাছ ধরতে যান। নদীর ধারে বসে তিনি বড়শি ফেলেন। কিছুক্ষণ পরই তিনি আকস্মিক নদীতে পড়ে যান। এ সময় স্থানীয় দুজন পথচারী তাঁকে নদীতে পড়ে যেতে দেখেন। তাঁরা দ্রুত নদীতে নেমে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাঁরা পাননি। একপর্যায়ে ফেনী ফায়ার সার্ভিসে খবর দেওয়া হয়। চট্টগ্রাম থেকে দুপুর সাড়ে ১২টায় ডুবুরি দল সেখানে পৌঁছে উদ্ধারকাজ শুরু করে। বিকেল চারটার দিকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়।

ফেনী ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনের স্টেশন কর্মকর্তা রাশেদ বিন খালিদ জানান, লাশটি স্থানীয় ফরহাদনগর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের জিম্মায় দেওয়া হয়েছে।
স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন জানান, নদীতে পড়ে মারা যাওয়া যুবক নাজিম তাঁর ফুফাতো ভাই। মৃগীরোগী হওয়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0