বিজ্ঞাপন

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, জলাবদ্ধতার কারণে রিপনদের পরিবার নগরের নিউ জুম্মাপাড়া করিমিয়া মাদ্রাসায় আশ্রয় নিয়েছিল। মা রোকেয়া বেগম বাড়িতে আসা-যাওয়া করলেও বড় ছেলে শফিকুল ইসলাম মাদ্রাসাতেই ছিল। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে শফিকুলকে বাড়িতে নিয়ে আসার জন্য ছোট ছেলে রিপনকে নিয়ে ওই মাদ্রাসায় যান রোকেয়া। বাড়ি ফেরার পথে আল হেরা স্কুলের কাছে পা পিছলে বড় ছেলে কেডি খালে পড়ে ডুবে যায়। তাকে বাঁচাতে তার ছোট ভাই রিপন পানিতে ঝাঁপিয়ে পড়লে সে–ও ডুবে যায়। এ সময় মা রোকেয়া বেগম তাঁর দুই ছেলেকে উদ্ধার করার জন্য খালের পানিতে ঝাঁপ দেন। বড় ছেলে শফিকুল ইসলাম (১২) কোনোরকমে উঠতে সক্ষম হলেও রোকেয়া ও রিপন পানিতে তলিয়ে যান।

পরে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল ও স্থানীয় লোকজন মা-ছেলেকে উদ্ধার করেন। রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে দুজনেরই মৃত্যু হয়। বড় ছেলে শফিকুল ইসলামকে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রংপুর সিটি করপোরেশনের ২৫ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর নুরন্নবী জানান, মা-ছেলের এমন মর্মান্তিক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন