ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় একটি ভাঙারির দোকান থেকে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে স্নাতক (পাস) পরীক্ষার ২৯৪টি উত্তরপত্র উদ্ধার করা হয়েছে। গত শনিবার সন্ধ্যায় জেলা শহরের স্টেশন রোডের ওই দোকান থেকে এসব উত্তরপত্র উদ্ধার করা হয়।

জানা গেছে, ৭ নভেম্বর কসবা উপজেলার সরকারি আদর্শ মহাবিদ্যালয়ের সমাজকর্মের প্রভাষক ছায়েদুর রহমান চট্টলা এক্সপ্রেস ট্রেনে করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া যান। সে সময় ছায়েদুরের সঙ্গে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিত স্নাতক (পাস) বিএস ও বিএসএস সমাজতত্ত্ব-২ পরীক্ষার ২৯৪টি উত্তরপত্র ছিল। কিন্তু স্টেশন এলাকায় খাতাগুলো হারিয়ে ফেলেন তিনি। বিষয়টি উল্লেখ করে শনিবার দুপুরে তিনি সদর থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

জিডিতে উল্লেখ করা হয়, তিনি (প্রভাষক ছায়েদুর) ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর এলাকার বণিকপাড়ায় থাকেন। বৃহস্পতিবার তিনি বস্তায় ভর্তি খাতা নিয়ে কুমিল্লার আঞ্চলিক কেন্দ্র থেকে চট্টলা এক্সপ্রেস ট্রেনে করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া আসেন। বেলা দেড়টায় ট্রেন থেকে নেমে রিকশা ডাকতে গিয়ে ফিরে এসে সমাজতত্ত্ব-২–এর খাতাগুলো খুঁজে পাননি।

ছায়েদুর রহমান বলেন, বৃহস্পতিবার উত্তরপত্রগুলো হারানো যায়। এরপর প্রতিদিন স্টেশন ও এর আশপাশের এলাকায় উত্তরপত্রগুলো খোঁজার চেষ্টা করেছেন। শনিবার সন্ধ্যায় টোকাইয়ের মাধ্যমে উত্তরপত্রগুলোর খোঁজ পান। পরে স্টেশন রোড এলাকার ভাঙারির দোকান থেকে খাতাগুলো উদ্ধার করা হয়। সব খাতাই অক্ষত আছে।

কলেজের অধ্যক্ষ ইসহাক ভূঁইয়া বলেন, কলেজের কোনো পরীক্ষার খাতা হারিয়ে যাওয়া কিংবা খাতা পাওয়ার কোনো বিষয়েই তিনি অবগত নন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিম উদ্দিন বলেন, ওই প্রভাষক রিকশা আনতে যাওয়ার সুযোগে টোকাইরা খাতাগুলো নিয়ে যায় বলে জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন