বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

খুলনা মহানগর বিএনপির প্রথম যুগ্ম আহ্বায়ক করা হয়েছে মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি ও নগর যুবদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক তরিকুল ইসলামকে। আর সদস্যসচিব হয়েছেন নগর ছাত্রদল ও যুবদলের সাবেক সভাপতি শফিকুল আলম তুহিন। অন্যদিকে জেলা বিএনপির প্রথম যুগ্ম আহ্বায়ক করা হয়েছে জ্যেষ্ঠ যুগ্ম সম্পাদক আবু হোসেনকে আর সদস্যসচিব হয়েছেন প্রথম সাংগঠনিক সম্পাদক মনিরুল হাসান। তাঁদের মধ্যে তরিকুল ইসলাম ছাড়া অন্যরা দীর্ঘদিন ধরেই বিএনপির কর্মসূচিতে সক্রিয় আছেন।

এদিকে মহানগর বিএনপি থেকে নজরুল ইসলামকে বাদ দেওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তাঁর অনুসারীরা। তাঁরা কমিটি পুনর্গঠনের দাবি জানিয়েছেন। নতুন ঘোষিত কমিটির বিষয়ে কথা বলার জন্য নজরুল ইসলামের মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করেও তা বন্ধ পাওয়া গেছে। তবে তাঁর অনুসারী হিসেবে পরিচিত সদর থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আরিফুজ্জামান বলেন, ‘আমরা অবাক, বিস্মিত ও হতভম্ব। খুলনায় বিএনপির আন্দোলন–সংগ্রাম, সফলতা-ব্যর্থতা যা হয়েছে, নজরুল ইসলামের হাত ধরেই হয়েছে। এখন দল ও তিনি যা বলবেন, সেভাবে পরবর্তী করণীয় নির্ধারণ করব।’

কমিটি ঘোষণার পর শফিকুল আলম তুহিন প্রথম আলোকে বলেন, দল যে প্রত্যাশা নিয়ে দায়িত্বে দিয়েছে, তাঁদের এখন চাওয়া সেই প্রত্যাশা পূরণ করা। নেতা-কর্মীদের নিয়ে বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন সংগ্রাম চালিয়ে যাওয়া হবে। নেতা-কর্মীদের নতুন করে উজ্জ্বীবিত করা হবে। এ ক্ষেত্রে আগের কমিটির সবাইকে অন্তর্ভুক্ত করা হবে। দলে কোনো গ্রুপিং বা দ্বন্দ্ব থাকবে না বলে মনে করেন তিনি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন