default-image

সিলেট সিটি করপোরেশনের ২১ নম্বর ওয়ার্ডের সোনারপাড়া এলাকার বাসিন্দারা গতকাল শনিবার মধ্যরাতে পানি সরবরাহের দাবিতে বিক্ষোভ করেন। এ সময় বিক্ষুব্ধ লোকজন সিলেট-তামাবিল মহাসড়কের ফরহাদ খাঁ পুলের সামনে টায়ারে আগুন জ্বালিয়ে রাস্তা অবরোধ করে রাখেন। এতে দুই পাশের যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। প্রায় দেড় ঘণ্টা পর অবরোধ তুলে নেন বিক্ষুব্ধ লোকজন।

স্থানীয় লোকজন জানিয়েছেন, সোনারপাড়া এলাকায় এক মাস ধরে তীব্র পানির সংকট রয়েছে। পানি সরবরাহের লাইনে সমস্যা হওয়ায় এমনটা হচ্ছে। তীব্র গরমে পানির সংকটে ভোগান্তিতে পড়েন স্থানীয় লোকজন। এ অবস্থায় গতকাল রাত সাড়ে ১১টা থেকে স্থানীয় লোকজন পানির দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করেন। রাত ১২টার দিকে সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, পাশের ২০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদ ও স্থানীয় নারী কাউন্সিলর নাজনীন আকতার গিয়ে বিক্ষুব্ধ লোকজনকে শান্ত করেন।

মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী তাৎক্ষণিকভাবে পানি সরবরাহ নিশ্চিত করার আশ্বাস দেন। এ ছাড়া আজ রোববার দুপুরে স্থানীয় কাউন্সিলর ও পানি শাখার কর্মকর্তাদের নিয়ে নগর ভবনে বৈঠক করে সমস্যা সমাধানে উদ্যোগ নেওয়ার আশ্বাস দেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে আন্দোলনকারীরা দিবাগত রাত পৌনে একটার দিকে অবরোধ তুলে নেন। পরে করপোরেশনের পানি শাখা গাড়িতে করে পানি এনে সোনারপাড়া এলাকাবাসীকে সরবরাহ করে।

সিটি করপোরেশনের স্থানীয় নারী কাউন্সিলর নাজনীন আকতার আজ সকাল সাড়ে নয়টার দিকে প্রথম আলোকে বলেন, বিক্ষোভের খবর পেয়ে তিনি তাৎক্ষণিকভাবে সেখানে যান। মেয়রসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের বিষয়টি অবহিত করেন। পরে মেয়র গিয়ে পানিসংকটের স্থায়ী সমাধানের আশ্বাস দিলে স্থানীয় লোকজন অবরোধ তুলে নেন।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন