default-image

পাবনার সুজানগর উপজেলার দুলাই ইউনিয়নের চরদুলাই দক্ষিণপাড়া গ্রামে মসজিদ নির্মাণের জন্য মাটি খুঁড়তে গিয়ে পাঁচটি হ্যান্ড গ্রেনেড পাওয়া গেছে। আজ মঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা থেকে আসা বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল গ্রেনেডগুলো উদ্ধার করে নিষ্ক্রিয় করেছে।
পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেনেডগুলো মরিচাধরা ছিল। তারা ধারণা করছে, ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে মুক্তিযোদ্ধারা অথবা পাকিস্তানি সেনারা গ্রেনেডগুলো ওই স্থানে লুকিয়ে রেখেছিলেন।

স্থানীয় লোকজন ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গ্রামে মসজিদ নির্মাণের জন্য কয়েক দিন ধরে শ্রমিকেরা মাটি খুঁড়ছিলেন। সোমবার দুপুরে হঠাৎ করেই তাঁরা মাটিতে পোঁতা পাঁচটি গ্রেনেড পান। পরে থানায় খবর দিলে পুলিশ গিয়ে জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থে এলাকাটা ঘিরে ফেলে। এরপর ঢাকার বোমা নিষ্ক্রিয়করণ বিভাগে যোগাযোগ করে। খবর পেয়ে মঙ্গলবার দুপুরে বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল এসে গ্রেনেডগুলো উদ্ধার করে নিষ্ক্রিয় করে।

সুজানগর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) হাদিউল ইসলাম বলেন, গ্রেনেডগুলো মরিচাধরা ও ক্ষয় হওয়া অবস্থায় ছিল। বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল গ্রেনেডগুলো উদ্ধার করে নিষ্ক্রিয় করেছে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে গ্রেনেডগুলো থানায় সংরক্ষিত রাখা হয়েছে। হাদিউল ইসলাম বলেন, ধারণা করা হচ্ছে, মুক্তিযুদ্ধকালে মুক্তিযোদ্ধারা বা পাকিস্তানি সেনাবাহিনী ওই স্থানে গ্রেনেডগুলো পুঁতে রেখেছিলেন। পরবর্তীকালে তাঁরা আর সেগুলো সরাতে পারেননি। ফলে ওখানেই থেকে গেছে।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন