default-image

বাড়ির পাশে পুকুরে চার বছরের ছেলে রাফিন হোসেনকে নিয়ে গোসল করতে যান গৃহবধূ বিথিয়ারা খাতুন। গোসলের একপর্যায়ে ছেলেটি মায়ের চোখের সামনে বেশি পানিতে তলিয়ে যায়। এ সময় মা প্রাণপণ চেষ্টা করেও রক্ষা করতে পারেননি। পরে স্থানীয় লোকজন এসে পানির নিচে অনেক খোঁজাখুঁজি করে শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার সাহারবাটি ইউনিয়নের হিজলবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। মারা যাওয়া শিশু রাফিন হোসেন একই গ্রামের আকাশ আলীর ছেলে।

বিজ্ঞাপন

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, অনেকে ওই পুকুরে গোসল করতে ও কাপড় ধুতে আসেন। মায়ের সঙ্গে রাফিন হোসেনও এসেছিল গোসল করতে। গোসলের এক সময় বেশি পানিতে চলে যাওয়ায় ছেলেটি পানিতে ডুবে যায়। ডুবে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ছেলেটির মা ও এলাকার লোকজন তাকে উদ্ধারে চেষ্টা চালাতে থাকেন। একপর্যায়ে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হলেও তাকে প্রাণে বাঁচানো যায়নি।

গাংনী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বজলুর রহমান বলেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন