গত বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে বগুড়ার ধুনট উপজেলার পশ্চিম ভরনশাহী গ্রামে নানার বাড়িতে কথা হয় মা-হারা দুই মেয়ের সঙ্গে। আট বছরের রাফিয়া ইয়াসমিন কথা বলতে চায়নি। হুমাইরার কাছে মায়ের কথা বলতেই তার চোখ ভিজে যায়। কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলে, ‘ঈদের জন্য দুই বোনকে বাবা জামা কিনে দিয়েছে। নানা-নানি কিনে দিয়েছে। মা তো আর নেই। বায়না করব কার কাছে?’ তারপর আর কোনো কথা বলতে পারেনি সে।

হুমায়রা-রাফিয়ার পারভিন আকতার বলেন, ‘যে কয়েক দিন বেঁচে আছি, আমাদের কাছে ওদের আদরের কোনো কমতি থাকবে না। তবু ওদের মায়ের অভাব কি পূরণ হবে? মাকে তো আর ফিরিয়ে দেওয়া যাবে না। যতটুকু পারছি, তাদের মায়ের কথা ভুলিয়ে রাখার চেষ্টা করে যাচ্ছি।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন