default-image

চাঁদপুরের হাইমচরে মেঘনা নদীতে জাটকা ধরতে গিয়ে ঝড়ের কবলে পড়ে নিখোঁজ জেলে মুনসুর আহমেদ ব্যাপারীর (৩৫) লাশ মিলেছে। আজ সোমবার বিকেলে গাজীনগর–সংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়।

মনসুর চাঁদপুর সদর উপজেলার গোবিন্দিয়া গ্রামের লতিফ ব্যাপারীর ছেলে। স্থানীয় ব্যক্তিরা জানান, গতকাল রোববার সন্ধ্যায় মুনসুর ব্যাপারীসহ সাতজন জেলে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নদীতে জাটকা ধরতে নামেন। হঠাৎ করে ঝড় শুরু হলে তাঁরা সবাই ঝড়ের কবলে পড়ে নদীতে ডুবে যান। স্থানীয় ব্যক্তিদের সহযোগিতায় ছয়জন উদ্ধার হলেও মনসুর নিখোঁজ থেকে যায়।

খবর পেয়ে আজ সোমবার সকাল থেকে চাঁদপুর নৌ ফায়ার সার্ভিস দল হাইমচর মেঘনা নদীতে সন্ধান শুরু করে। বিকেলে সাড়ে চারটায় ফায়ার সার্ভিসের সহযোগিতায় গাজীনগর–সংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়।

হাইমচর ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা অহিদুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা লাশটি উদ্ধার করে হাইমচর থানা–পুলিশের কাছে হস্তান্তর করি।’

হাইমচর থানার ওসি মো. মাহবুবুর রহমান মোল্লা বলেন, নিহত মুনসুর নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নদীতে জাটকা ধরতে গিয়ে ঝড়ের কবলে পড়েন। লাশটি আজ সন্ধ্যায় নৌ পুলিশের সহযোগিতায় পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন