বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এ দাবির বিষয়ে আশ্বস্ত করে প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী বলেন, যশোরকে পর্যায়ক্রমে আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে রূপান্তর করা হবে। ভৌগোলিক অবস্থানের কারণেই যশোর এর জন৵ যোগ্য। এর ধারাবাহিকতায় যশোর বিমানবন্দরে নতুন টার্মিনাল নির্মাণ করা হচ্ছে। রানওয়ে শক্তিশালী করতে তহবিল বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। যশোর-কলকাতা বিমান চলাচলের উদ্যোগের প্রক্রিয়া চলমান থাকবে।

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন যশোর-২ আসনের সাংসদ মো. নাসির উদ্দিন, ঝিনাইদহ-৪ আসনের সাংসদ আনোয়ারুল আজিম, পুলিশের খুলনা রেঞ্জের ডিআইজি খন্দকার মহিব উদ্দিন, যশোর প্রেসক্লাবের সভাপতি জাহিদ হাসান প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনসের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, প্রাথমিকভাবে সপ্তাহে চার দিন যশোর-কক্সবাজার রুটে সরাসরি বিমান চলাচল করবে। সপ্তাহের শনি, সোম, বুধ ও শুক্রবার যশোর থেকে বেলা ১টা ৪৫ মিনিটে কক্সবাজারের উদ্দেশে বিমান ছেড়ে যাবে। কক্সবাজার থেকে বেলা ৩টা ২৫ মিনিটে যশোরের উদ্দেশে আবার বিমান ছেড়ে আসবে। এ ছাড়া সপ্তাহের রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার যশোর থেকে সকাল ৯টা ১৫ মিনিটে চট্টগ্রামের উদ্দেশে রওনা হবে। একই দিন বিকেল ৫টা ১০ মিনিটে চট্টগ্রামের হজরত শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে যশোরের উদ্দেশে বিমান যাত্রা করবে।

সব ধরনের ট্যাক্স ও সারচার্জসহ যশোর থেকে চট্টগ্রাম ওয়ানওয়ের ন্যূনতম ভাড়া ছয় হাজার টাকা এবং যশোর থেকে কক্সবাজারের ওয়ানওয়ের ন্যূনতম ভাড়া সাড়ে ছয় হাজার টাকা।

ইউএস বাংলা এয়ারলাইনসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, অভ্যন্তরীণ রুট ছাড়াও ৯টি আন্তর্জাতিক রুটে ইউএস বাংলার ফ্লাইট চলাচল করছে। দুই বছরের মধ্যে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক রুট আরও সম্প্রসারণ করা হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন