বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বৈঠকে পোর্ট লিংক কনটেইনার ডিপো, বিএম কনটেইনার ডিপো, কেডিএস লজিস্টিকস, কেএসআরএম, বিএসআরএম, জিপিএইচ ইস্পাত, আবুল খায়ের গ্রুপ, ওজন স্কেল কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বারআউলিয়া হাইওয়ে থানার ওসি কাজী নাজমুল হক ও কুমিরা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মোহাম্মদ আলমগীর।

পুলিশ সূত্র জানায়, স্বাভাবিক সময়ে এসব কারখানা এলাকায় গাড়ি দাঁড় করিয়ে রাখা হয়। ফলে দ্রুতগামী সব গাড়িকে এসব কারখানার সামনে এসে গতি কমিয়ে আনতে হয়। এতে যানজটের সৃষ্টি হয়।

ওসি আবুল কালাম আজাদ প্রথম আলোকে বলেন, উপস্থিত কারখানার প্রতিনিধিদের ঈদের আগে এবং ঈদের পর ঘরমুখী মানুষকে যাতে যানজটে পড়ে দুর্ভোগে পড়তে না হয়, সে জন্য কারখানার গাড়িগুলোকে সড়কের ওপর দাঁড় করিয়ে না রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কারখানার প্রতিনিধিরাও মহাসড়কের ওপর তাঁদের কোনো গাড়ি না রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন এবং তাঁরা সর্বোচ্চ তদারকি করবেন বলে জানিয়েছেন।

গত শুক্রবার ‘সীতাকুণ্ডে ৩৮ কিলোমিটারে আট স্থানে যানজটের শঙ্কা’ শিরোনামে প্রথম আলো একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন