সকাল থেকে নগরের বিভিন্ন স্থানে পুলিশ কঠোর অবস্থানে আছে। তবে জরুরি প্রয়োজনে সড়কে কিছু লোকজন চলাচল করতে দেখা গেছে। সড়কে সাইকেল, রিকশা ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চলছে। তবে পাড়া-মহল্লার অধিকাংশ সড়কে লোকজনের আনাগোনা কম চোখে পড়ে।

নগরের সাতমাথা, বাহার কাছনা, শালবন, শাপলা চত্বর, জাহাজ কোম্পানি মোড়, মেডিকেল মোড়, কাচারি বাজার, জিলা স্কুল মোড়, লালবাগ, পার্ক মোড়, মডার্ন মোড়সহ বিভিন্ন এলাকায় পুলিশের তল্লাশিচৌকি দেখা গেছে। এসব স্থানে দায়িত্বরত পুলিশের সদস্যরা যানবাহন চলাচলে বাধা দিচ্ছেন ও বাইরে বের হওয়া মানুষদের সচেতন করছেন।

default-image

নগরের কাচারি বাজার এলাকায় কথা হয় ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাচালক রিয়াজুলের সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘খামো কী? তাই অটো নিয়া বের হইছি। বাড়িত পাঁচজন খাওয়াইয়া।’ নগরের বিভিন্ন এলাকায় টহল দেওয়ার পাশাপাশি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বিষয়ে হ্যান্ডমাইকে প্রচারণা চালাচ্ছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

default-image

নগর পুলিশের সহকারী পুলিশ কমিশনার (ডিবি) আলতাব হোসেন বলেন, জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কোনো গাড়ি কিংবা মানুষ চলাচলে কঠোর অবস্থানে রয়েছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। প্রয়োজনে বিভিন্ন মোড়ে চেকপোস্ট বসানো হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন