বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার বেলা তিনটায় রাজশাহীর জেলা প্রশাসকের দায়িত্বে থাকা অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ শরিফুল হকের সভাপতিত্বে জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। সবাই আমের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন পক্ষের মতামতের ভিত্তিতে আম পাড়ার দিন–তারিখ ঘোষণা করা হয়।

সিদ্ধান্ত অনুযায়ী গুটি আম আগামীকাল শুক্রবার থেকে পাড়া যাবে। গোপালভোগ আম পাড়া যাবে ২০ মে থেকে। লকনা ও রানিপছন্দ ২৫ মে, হিমসাগর ২৮ মে, ল্যাংড়া ৬ জুন, আম্রপালি ও ফজলি ১৫ জুন থেকে। এর এক মাস পরে ১০ জুলাই থেকে আশ্বিনা ও বারি-৪ জাতের আম পাড়া যাবে। গৌড়মতি ১৫ জুলাই পাড়া যাবে। এর এক মাসের বেশি সময় পরে ২০ আগস্ট থেকে নাবি জাতের আম ইলামতি পাড়া যাবে।

সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ শরিফুল ইসলাম বলেন, সবার সঙ্গে আলোচনা করে আম পাড়ার এই সম্ভাব্য তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে কেউ অপরিপক্ব আম পেড়ে বাজারজাত করার চেষ্টা করলে তাঁর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রাজশাহী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মোজদার রহমান বলেন, রাজশাহীতে ১৮ হাজার ৫১৫ হেক্টর জমিতে আম চাষ করা হয়েছে। এবার আম উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ২ লাখ ১৭ হাজার মেট্রিক টন। গাছে আম কম দেখা গেলেও লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে। কারণ, আম গাছে কম থাকলে আকারে বড় হয়। তা ছাড়া এবার প্রাকৃতিক দুর্যোগ ছিল না।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন