বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সংবাদ সম্মেলনে চান্দিনা উপজেলা এলডিপির সাধারণ সম্পাদক আবু তাহের, গণতান্ত্রিক যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক জামসেদ আহমেদ, চান্দিনা উপজেলা এলডিপির কোষাধ্যক্ষ জাহাঙ্গীর আলম ও মহিচাইল ইউনিয়ন এলডিপির সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন কবির উপস্থিত ছিলেন।

অভিযোগের বিষয়ে চান্দিনা পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সভাপতি ও মামলার বাদী কাজী আখলাকুর রহমান প্রথম আলোকে বলেন, সংবাদ সম্মেলনে গুলির কথা একবারের জন্যও বলেননি এলডিপির নেতারা। দুটি ছেলেকে গুলি করা হলো, তা নিয়ে কোনো বক্তব্য নেই।

৯ মে চান্দিনা পৌর ভবনের সামনের সড়কে চান্দিনা যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা রেদোয়ান আহমেদের গাড়ি আটকে বিক্ষোভ করেন ও গাড়িতে তরমুজের খোসা ছোড়েন। এ সময় রেদোয়ান আহমেদ তাঁর লাইসেন্স করা শটগান থেকে গুলি করেন। এতে দুজন গুলিবিদ্ধ হন। এ ঘটনায় রেদোয়ানসহ ১৯ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা ২০ থেকে ২৫ জনের নামে চান্দিনা থানায় মামলা করা হয়। মামলার চার আসামি বর্তমানে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে আছেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন