default-image

পয়োনিষ্কাশন নালার পাশে পড়ে ছিল লাশ। মাথায় লাল গামছা প্যাঁচানো। পরনে লুঙ্গি, তার নিচে ট্রাউজার ও গায়ে ছিল চেক শার্ট। পাশে পড়ে ছিল বাইসাইকেল ও একটি ছাতা। আজ শনিবার যশোর শহরের কারবালা এলাকায় লাশটি উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত ব্যক্তির নাম ইসরাফিল হোসেন (৪০)। তিনি মনিরামপুর উপজেলার কাশিপুর খেদাপাড়া গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা বজলুর রহমানের ছেলে। তিনি মাটি কাটার যন্ত্রের সহকারী হিসেবে কাজ করতেন।

বিজ্ঞাপন
ধারণা করা হচ্ছে, ওই ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।
মনিরুজ্জামান, ওসি, কোতোয়ালি থানা

পুলিশ ও স্থানীয় বাসিন্দা সূত্রে জানা যায়, ইসরাফিল যশোর শহরের বকচর বিহারি কলোনি এলাকায় পরিবার নিয়ে ভাড়া থাকতেন। গত শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে বাসা থেকে বাইসাইকেল নিয়ে বের হন তিনি। এরপর আর ফেরেননি। আজ সকালে শহরের কারবালা এলাকায় পয়োনিষ্কাশন নালার পাশে লাশ পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় ব্যক্তিরা। তাঁরা পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়। পরিবারের লোকজন গিয়ে লাশটি শনাক্ত করেন। লাশের মাথা ও মুখে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

জানতে চাইলে কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান বলেন, ধারণা করা হচ্ছে, ওই ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। কী কারণে, কারা হত্যা করেছে, তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

মন্তব্য পড়ুন 0