নিহত কৃষকের প্রতিবেশী বজলুর রহমান প্রথম আলোকে জানান, মোশারফ হোসেন নিজের জমিতে উৎপাদিত লালশাক বিক্রির উদ্দেশ্যে আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাতটার দিকে রিকশাভ্যানে করে চুয়াডাঙ্গার উদ্দেশে রওনা দেন। ডিঙ্গেদহ মৎস্য উৎপাদন খামারের কাছে পৌঁছালে ঝিনাইদহ থেকে চুয়াডাঙ্গাগামী পণ্যবাহী একটি ট্রাক ভ্যানটির পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে মোশারফ ভ্যান থেকে ছিটকে রাস্তায় পড়ে গুরুতর আহত হন। স্থানীয় লোকজন মুমূর্ষু অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক শাকিল আরসালান বলেন, মোশারফ হোসেনকে হাসপাতালে নেওয়ার পরপরই মারা যান তিনি। মূলত বুক ও মাথায় বড় ধরনের আঘাত পাওয়ায় তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ মহসীন প্রথম আলোকে বলেন, নিহত মোশারফের লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি শেষে স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। দুর্ঘটনায় অভিযুক্ত গাড়িটি শনাক্তের কাজ চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন