বিজ্ঞাপন

প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মেরাজ উদ্দিনের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য দেন বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন শেরপুর জেলা শাখার সভাপতি রাজিয়া সামাদ, নাগরিক সংগঠন জনউদ্যোগ শেরপুর কমিটির আহ্বায়ক আবুল কালাম আজাদ, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি রফিকুল ইসলাম, জেলা জাসদের (ইনু) সভাপতি মনিরুল ইসলাম, জেলা মহিলা পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক আইরিন পারভীন, সদর উপজেলা কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি সোলায়মান খান।

মানববন্ধনে আরও বক্তব্য দেন কবি সংঘ বাংলাদেশের সভাপতি তালাত মাহমুদ, মানবাধিকার সংগঠন আমাদের আইন শেরপুর শাখার সভাপতি নুর ই আলম, আয়োজক সংগঠন প্রেসক্লাবের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি মলয় মোহন বল, সহসভাপতি এস এম শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আদিল মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক মানিক দত্ত, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সাবিহা জামান, জাতীয় সাংবাদিক সংস্থার জেলা সভাপতি জি এইচ হান্নান, নালিতাবাড়ী প্রেসক্লাবের সভাপতি এম এ হাকাম, শ্রীবরদী প্রেসক্লাবের সভাপতি রেজাউল করিম, নকলা প্রেসক্লাবের সভাপতি মোশাররফ হোসেন প্রমুখ।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা বলেন, অনুসন্ধানী সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দুর্নীতি নিয়ে ধারাবাহিকভাবে প্রতিবেদন করেছেন। এতে অনেকের আক্রোশের শিকার হয়েছেন তিনি। তাই তাঁর বিরুদ্ধে ১০০ বছর আগের আইনে মামলা দিয়ে তাঁর কণ্ঠরোধ করার চেষ্টা হচ্ছে। বক্তারা বলেন, সংবাদপত্র রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। তাই রোজিনা ইসলামকে কারাগারে রাখার অর্থ গণতন্ত্রকে অবরুদ্ধ করা। গণতন্ত্রের স্বার্থে সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের দ্রুত নিঃশর্ত মুক্তি দিতে হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন