বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পুলিশ জানিয়েছে, আইআইইউসির ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান থাকার সময় ৫৫০ জন শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারীর বেতন-ভাতা এবং প্রভিডেন্ট ফান্ডের প্রায় ১৫ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ এনে ৫ আগস্ট সামশুল ইসলাম ও বিশ্ববিদ্যালয়টির সাবেক উপাচার্য কে এম গোলাম মহিউদ্দিনসহ ১০ জন ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য, শিক্ষক–কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করেন বিশ্ববিদ্যালয়টির ট্রেজারার হুমায়ুন কবির। অন্য একটি মামলায় ১০ সেপ্টেম্বর ঢাকা থেকে সামশুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। এরপর সীতাকুণ্ড থানা-পুলিশের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ২১ সেপ্টেম্বর অর্থ আত্মসাৎ মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়। ২৩ সেপ্টেম্বর রিমান্ডের আবেদন করেছিলেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা।

ট্রাস্টি বোর্ডের সাবেক ট্রেজারার আহসান উল্লাহ ভূঁইয়া, সাবেক ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য মোহাম্মদ আমিরুজ্জামান, আইআইইউসি ট্রেজারার আবদুল হামিদ চৌধুরী, সহ–উপাচার্য মো. আলী আজাদী, হিসাব বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তৌফিকুর রহমানসহ ১০ জন ওই মামলার আসামি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন