default-image

সিরাজগঞ্জে আবারও শিশু চুরির ঘটনা ঘটেছে। আজ রোববার সকালে সদর উপজেলার বহুলী ইউনিয়নের কদমপাল এলাকায় নিজ বাড়ি থেকে ছোঁয়ামনি নামের আড়াই মাস বয়সী শিশুটি চুরি হয়। এর সাড়ে তিন ঘণ্টা পর শিশুটিকে উদ্ধার করেছে পুলিশ।

আজ রোববার দুপুরে জেলার কামারখন্দ উপজেলার ভদ্রঘাট বাজার এলাকা থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়। ছোঁয়ামনি কদমপাল গ্রামের সুলতান শেখের ছেলে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ।

এর আগে গত ২৩ ফেব্রুয়ারি দুপুরে সিরাজগঞ্জের ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডে চিকিৎসা নিতে আসা মাহিম নামের ২৩ দিন বয়সী একটি শিশু চুরি হয়। ২৭ ফেব্রুয়ারি হাটিকুমরুল গোলচত্বরের সাখাওয়াত এইচ মেমোরিয়াল হাসপাতাল থেকে সামিউল নামের পাঁচ ঘণ্টা বয়সী এক নবজাতক চুরি হয়। ওই দিন রাতেই আলোকদিয়া গ্রাম থেকে একটি শিশুকে জীবিত ও অপরটি মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ। এর আট দিন পর ৬ মার্চ কামারখন্দ উপজেলার বারাকান্দি গ্রাম থেকে আলিফ নামের ২৩ দিন বয়সী আরও একটি শিশু চুরির পাঁচ ঘণ্টা পর উদ্ধার করে পুলিশ। পুলিশ জানিয়েছে, এসব শিশু চুরির ঘটনায় নিঃসন্তান মায়েরাই জড়িত।

রোববারের ঘটনা নিয়ে সিরাজগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বাহাউদ্দিন ফারুকী প্রথম আলোকে বলেন, রোববার সকালে শিশুটিকে না পাওয়া গেলে তার পরিবারের লোকজন পুলিশকে তাৎক্ষণিক জানান। খবর পেয়ে পুলিশ দ্রুত শিশুটি উদ্ধারে অভিযান শুরু করে। প্রায় সাড়ে তিন ঘণ্টা পর দুপুরে ভদ্রঘাট বাজার এলাকায় একটি মোটরসাইকেলে করে অন্যত্র নিয়ে যাওয়ার সময় শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়।

ওসি বাহাউদ্দিন জানান, শিশুটিকে উদ্ধারের সময় মোটরসাইকেলসহ দুজনকে আটক করা হয়। এরপর তাঁদের তথ্যের ভিত্তিতে আরও তিনজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। এর মধ্যে দুজন পুরুষ ও তিনজন নারী রয়েছে বলেও জানান তিনি।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন