default-image

প্রাকৃতিক পর্যটনের বিকাশে সিলেটের সঙ্গে নেপাল সরকারের সিস্টার সিটি প্রকল্প গ্রহণ করতে নেপালি রাষ্ট্রদূতের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন সিলেটের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে নগর ভবনে ঢাকায় নিযুক্ত নেপালের রাষ্ট্রদূত বনশিধর মিশ্রার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে এই আহ্বান জানিয়েছেন মেয়র। সন্ধ্যায় সিলেট সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ দপ্তর সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে।

সৌজন্য সাক্ষাতে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী সিলেটের পর্যটন সম্ভাবনার কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, পাহাড়-বন-হাওর প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের জন্য সিলেটে পর্যটন ব্র্যান্ডিংয়ের নাম ‘প্রকৃতিকন্যা সিলেট’। হিমালয়কন্যা নেপাল ও প্রকৃতিকন্যা সিলেটের পর্যটনের মেলবন্ধনে সিলেট সিটি করপোরেশনের সঙ্গে ‘সিস্টার সিটি প্রকল্প’ নিয়ে নেপাল সরকারের যৌথভাবে কাজ করার সুযোগ আছে সিলেটে। হিমালয়কন্যা নেপালের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর বাংলাদেশের প্রকৃতিকন্যা সিলেটের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যকে কেন্দ্র করে দুই দেশের পর্যটন খাতকে আরও শক্তিশালী করা সম্ভব।

দুই সরকারের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে সিলেট সিটি করপোরেশন ও নেপালের একটি সিটি করপোরেশনের মধ্যে ‘সিস্টার সিটি প্রকল্প’ গ্রহণ করার ব্যাপারে উদ্যোগ নেব। সিস্টার সিটি প্রকল্প হলে দুই দেশের পর্যটনসহ ব্যবসা-বাণিজ্যের আরও প্রসার হবে।
বনশিধর মিশ্রা, ঢাকায় নিযুক্ত নেপালের রাষ্ট্রদূত

মেয়রের এই আহ্বানের পরিপ্রেক্ষিতে নেপালি রাষ্ট্রদূত বলেন, এ ব্যাপারে দুই সরকারের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে সিলেট সিটি করপোরেশন ও নেপালের একটি সিটি করপোরেশনের মধ্যে ‘সিস্টার সিটি প্রকল্প’ গ্রহণ করার ব্যাপারে উদ্যোগ নেবেন তিনি। পর্যটকদের সুবিধার কথা বিবেচনা করে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের সঙ্গে নেপালের কোনো একটি বিমানবন্দরের সরাসরি ফ্লাইট চালুর ব্যাপারেও তিনি কথা বলবেন বলে মেয়রকে জানান।

বিজ্ঞাপন
default-image

নেপালি রাষ্ট্রদূত বলেন, সিস্টার সিটি প্রকল্প হলে দুই দেশের পর্যটনসহ ব্যবসা-বাণিজ্যের আরও প্রসার হবে। বাংলাদেশ তথা সিলেটের মেডিকেল কলেজগুলোর চিকিৎসাসেবা ও শিক্ষার মান বিশ্বমানের উল্লেখ করে বনশিধর মিশ্রা বলেন, শিক্ষার গুণগত মান ভালো বলেই নেপালের উল্লেখ্যযোগ্যসংখ্যক শিক্ষার্থী সিলেটের মেডিকেল কলেজগুলোতে পড়ালেখা করছে।

সৌজন্য সাক্ষাৎকালে রাষ্ট্রদূতের সহধর্মিণী দুর্গা মিশ্রা, সিলেট সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা বিধায়ক রায় চৌধুরী, প্যানেল মেয়র রোকশানা বেগম, ওয়ার্ড কাউন্সিলর রেজওয়ান আহমদ, মোহাম্মদ তৌফিক বকস, এ বি এম জিল্লুর রহমান, আবদুল মুহিত, রকিবুল ইসলাম, এস এম শওকত আমীনসহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে নেপালি রাষ্ট্রদূতকে সিলেট সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা স্মারক হস্তান্তর করেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। নেপালের পক্ষ থেকে মেয়রকেও কিছু উপহারসামগ্রী তুলে দেন রাষ্ট্রদূত।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন