default-image

নীলফামারীর সৈয়দপুরে তাপমাত্রা আরও কমেছে। আজ মঙ্গলবার এখানে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১১ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আগের দিন তাপমাত্রা ছিল ১২ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঘন কুয়াশার কারণে দৃষ্টিসীমা (ভিজিবিলিটি) কম থাকায় সৈয়দপুর বিমানবন্দরে ৩টি ফ্লাইট অবতরণ করতে পারেনি। এ নিয়ে ১৯ দিন ধরে টানা উড়োজাহাজের শিডিউল বিপর্যয় ঘটছে।

বিমানবন্দর সূত্র জানায়, ১৯ দিন ধরে সৈয়দপুর অঞ্চলে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। তাপমাত্রা কমছে, সেই সঙ্গে ঘন কুয়াশা বিরাজ করছে। দিনের প্রথমার্ধে বেলা ২টা পর্যন্ত কুয়াশা কাটছে না। এ অবস্থায় প্রতিদিন উড়োজাহাজ চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে। তবে বিকেলে ভিজিবিলিটি কিছুটা বাড়লে সমন্বয় করে চলছে উড়োজাহাজগুলো। আজ সকালে ৩টি ফ্লাইট সূচি অনুযায়ী চলতে পারেনি। এর মধ্যে রয়েছে ইউএস বাংলার ২টি ও নভোএয়ারের ১টি ফ্লাইট।

বিজ্ঞাপন

সূত্রটি জানায়, উড়োজাহাজ স্বাভাবিক চলাচলের জন্য আকাশে ১ হাজার ৮০০ মিটার ভিজিবিলিটি দরকার। সেখানে মিলছে ৬০০ থেকে ১০০০ মিটার পর্যন্ত। দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে উড়োজাহাজ চলাচল স্বাভাবিক রাখা যাচ্ছে না। এতে যাত্রীরা দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন।

সৈয়দপুর বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক সুপলব কুমার ঘোষ শিডিউল বিপর্যয়ের কথা স্বীকার করেন। তিনি বলেন, প্রতিদিন আবহাওয়া অনুকূলে থাকছে না। তাই উড়োজাহাজ চলাচলও স্বাভাবিক হচ্ছে না। বিকেলে পরিস্থিতির উন্নতি হচ্ছে বলে জানান তিনি।

সৈয়দপুর আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা লোকমান হাকিম বলেন, সৈয়দপুর অঞ্চলে তাপমাত্রা আরও কমেছে। আজ ১১ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। আরও দুই দিন মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে বলে জানান তিনি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন