স্টেশনে পড়ে ছিল লাশ, লোকজনের মধ্যে করোনা-আতঙ্ক

বিজ্ঞাপন
default-image

নাটোর রেলস্টেশনের প্রবেশপথে অজ্ঞাতনামা এক ব্যক্তির লাশ পড়ে ছিল। আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে লাশটি স্টেশন কর্তৃপক্ষের নজরে এলে স্থানীয় প্রশাসনকে তা জানানো হয়। মরা যাওয়া ওই ব্যক্তি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারেন, এমন আশঙ্কায় স্থানীয় লোকজনের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ফলে লাশটি উদ্ধার ও দাফন করতে কেউ এগিয়ে আসেনি। অবশেষে পৌর মেয়রের নির্দেশে কর্মীরা বিকেলে লাশটি উদ্ধার করে স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করেন।

ওই রেলস্টেশনের স্টেশনমাস্টার অশোক চক্রবর্তী বলেন, লাশ পড়ে থাকার খবর পেয়ে এসে দেখেন, লাশের শরীরে তেমন কাপড়চোপড় ছিল না। বিষয়টি জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনকে জানানো হয়। দীর্ঘ সময় পরও কোনো কর্তৃপক্ষ লাশটি উদ্ধারে এগিয়ে আসেনি। লাশটি করোনায় আক্রান্ত রোগী হতে পারে, এমন আশঙ্কায় সবাই দায়িত্ব এড়িয়ে যায়। পরে বিষয়টি নাটোর পৌরসভার মেয়র উমা চৌধুরীকে জানানো হয়। তাঁর নির্দেশনায় বিকেল পাঁচটার দিকে লাশটি উদ্ধার করে স্থানীয় একটি কবরস্থানে দাফন করা হয়।

নাটোর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম বলেন, লাশটি বেওয়ারিশ ছিল। কেউ তাঁর ব্যাপারে কোনো তথ্য দিতে পারেননি। তাঁর শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন ছিল না। তাই পৌর কর্তৃপক্ষ লাশটি উদ্ধার করে দাফন করেছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন