বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বরাবর শিক্ষার্থীদের দেওয়া স্মারকলিপিতে ৯টি দাবি রয়েছে। এসব দাবির মধ্যে রয়েছে—চট্টগ্রামসহ সারা দেশে সব ধরনের গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের জন্য শর্তহীন হাফ পাস নিশ্চিত করে প্রজ্ঞাপন জারি করা, গণপরিবহনে নারীর নিরাপত্তা নিশ্চিত করা, মানুষের চলাচলের জায়গায় ফুটপাত ও পদচারী–সেতু নির্মাণ না করা, সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হওয়ার ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে বিচার করা, সড়ক দুর্ঘটনায় আহত যাত্রীদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ প্রদান ইত্যাদি।

দুই সপ্তাহের বেশি সময় ধরে অর্ধেক ভাড়ার দাবিতে আন্দোলন করছেন শিক্ষার্থীরা। প্রথমে বিআরটিসি এবং পরে বেসরকারি পরিবহনমালিকেরা রাজধানী ঢাকায় শিক্ষার্থীদের অর্ধেক ভাড়া নেওয়ার ঘোষণা দেন। তবে এ ঘোষণা কীভাবে বাস্তবায়িত হবে এবং কেউ অমান্য করলে কী শাস্তি হবে—বিষয়টি পরিষ্কার করেনি কেউ। পরিবহন খাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) থেকেও এ বিষয়ে কোনো নির্দেশনা জারি করা হয়নি।

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির পর গত ৭ নভেম্বর থেকে ঢাকাসহ সারা দেশে বাসের ভাড়া ২৬ থেকে ২৭ শতাংশ বাড়ানো হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে ১৮ নভেম্বর অর্ধেক ভাড়ার দাবিতে আন্দোলন শুরু করেন রাজধানীর বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীদের আন্দোলন চলাকালে ২৪ নভেম্বর ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ময়লার গাড়ির চাপায় নটর ডেম কলেজের শিক্ষার্থী নাঈম হাসান নিহত হন। তার পর থেকে নিরাপদ সড়ক, অর্ধেক ভাড়াসহ বিভিন্ন দাবিতে আন্দোলন করছেন শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীদের টানা আন্দোলনের পরিপ্রেক্ষিতে গত মঙ্গলবার রাজধানীতে বাসে অর্ধেক ভাড়ার দাবি মেনে নেওয়ার ঘোষণা দেয় পরিবহন মালিক সমিতি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন