default-image

কোথাও বাসাবাড়ি, কোথাও গাছগাছালি, আবার কোথাও খোলা জায়গার ওপর দিয়ে ৩৩ হাজার ভোল্টের বিদ্যুৎ লাইন টানানো। ঝড়বৃষ্টি নেই। অথচ হঠাৎ ওই লাইনের পাশাপাশি দুটি স্টিলের খুঁটি উপড়ে পড়ে যায়। এতে বড় ধরনের দুর্ঘটনা থেকে রক্ষা পান এলাকার লোকজন। আজ বৃহস্পতিবার মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলা সদরের জাঙ্গিরাই দাসপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এলাকার লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, বেশ কয়েক বছর আগে বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) জাঙ্গিরাই দাসপাড়া এলাকার ভেতর দিয়ে ৩৩ হাজার ভোল্টের লাইনটি স্থাপন করে। আজ সকাল সাড়ে নয়টার দিকে সেখানে লাইনসহ দুটি খুঁটি উপড়ে পড়ে। এ সময় লাইনের তার গাছ, বাঁশ ও বসতঘরের টিনের চালার ওপর পড়ে যায়। আতঙ্কিত হয়ে লোকজন ছোটাছুটি শুরু করেন। পরে সংশ্লিষ্ট বিদ্যুৎ বিভাগের লোকজন ওই লাইনে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করেন। এ ঘটনায় আশপাশের বিভিন্ন এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ হয়ে যায়।

বিজ্ঞাপন

স্থানীয় বাসিন্দা গাড়িচালক বিধান দাস বলেন, যেখানে দুটি খুঁটি পড়েছে, সেখানে প্রতিদিন বিকেলে শিশু-কিশোরেরা খেলাধুলা করে। অনেকে গবাদি পশু চরান। তবে ঘটনার সময় স্থানটি ফাঁকা ছিল। নইলে প্রাণহানির ঘটনা ঘটতে পারত।
এলাকাবাসী বলেন, দুটি খুঁটি কম গভীরতায় গর্ত করে স্থাপন করা হয়েছিল। এ ছাড়া খুঁটিগুলোর নিচের অংশ জং ধরে নষ্ট হয়ে গেছে। এ কারণে ঝড়বৃষ্টি ছাড়াই উপড়ে পড়েছে।

জুড়ীতে দায়িত্বে থাকা পিডিবির উপসহকারী প্রকৌশলী আনসারুল কবীর বেলা একটার দিকে মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন, উপড়ে পড়া খুঁটিগুলো বেশ পুরোনো। এ ছাড়া বন্যার পানি উঠে নিচের মাটি সরে গিয়েছিল। এলাকাবাসীর কাছ থেকে খবর পাওয়ার পরপরই দুর্ঘটনা এড়াতে লাইনটি বন্ধ করে দেওয়া হয়। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। লাইনটি দ্রুত সংস্কার করে দেওয়া হবে। আপাতত জাঙ্গিরাই দাসপাড়াসহ কয়েকটি এলাকায় বিকল্প উপায়ে বিদ্যুৎ সরবরাহ চালু করা হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন