বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

জেলা বণিক সমিতি সূত্রে জানা গেছে, সমিতির সদস্য শাকিল মোহাম্মদকে চেয়ারম্যান করে সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটি গঠনের জন্য তিন সদস্যের নির্বাচন পরিচালনা বোর্ড গঠন করা হয়। এ কমিটি নির্বাচনী তফসিল ঘোষণা করে। সেই অনুয়ায়ী আজ বুধবার ছিল মনোনয়নপত্র বিক্রির তারিখ। সেই অনুযায়ী আজ সকাল সাড়ে ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত শহরের টাউন হল সড়কে অবস্থিত বণিক সমিতির কার্যালয়ে এ মনোনয়নপত্র বিক্রির সময় নির্ধারণ করা হয়। কিন্তু এ কার্যক্রম শুরু হওয়ার আগেই বণিক সমিতির বর্তমান সভাপতি ও হবিগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের চেযারম্যান মোতাচ্ছিরুল ইসলাম এ নির্বাচন প্রক্রিয়া নিয়ে আপত্তি তোলেন। তাঁর বক্তব্য নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান বৈধ ৮০ জন সদস্যের নাম বাদ দিয়ে তিনি ভোটার তালিকা প্রকাশ করেছেন। পাশাপাশি একটি পক্ষকে সুবিধা দিতে নতুন করে ৬০ জন ভোটার অন্তর্ভুক্তি করেছেন। এ ছাড়া চেয়ারম্যান শাকিল বণিক সমিতির বিধিমতে নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান হওয়ার যোগ্যতা রাখেন না। এ বিষয়ে আজ সভাপতি মোতাচ্ছিরুল ইসলাম বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের বাণিজ্য সংগঠন বিভাগে একটি লিখিত অভিযোগ পাঠান জেলা প্রশাসনের মাধ্যমে। এতে তিনি নিরপেক্ষ ভোটার তালিকা প্রণয়ন করে নির্বাচন তফসিল নতুন করে ঘোষণার দাবি জানান।

এদিকে বণিক সমিতির জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে অপর এক একটি অংশ ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী নির্বাচন করতে চায়। এ নিয়ে দুটি পক্ষের মধ্যে নির্বাচন নিয়ে অস্থিরতা ও উত্তপ্ত পরিবেশ দেখা দেয়। খবর পেয়ে হবিগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুক আলীর নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে। পুলিশ বণিক সমিতির কার্যালয়ে অবস্থান নিয়ে এ পরিবেশ সামাল দিতে দেখা যায়। বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলে দুটি পক্ষের মধ্যে টান টান উত্তেজনা। ওই সময় পর্যন্ত নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডকে কোনো মনোনয়নপত্র বিক্রি করতে দেখা যায়নি। ফলে এ কার্যক্রম পণ্ড হয়ে যায়।

বর্তমান সভাপতি মোতাচ্ছিরুল ইসলাম বলেন, ‘আমি নির্বাচন চাই। তবে নির্বাচন বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রতারণা করে যে ফরমায়েশি ভোটার তালিকা প্রকাশ করেছেন, তা তিনি মানেন না। এ ছাড়া চেয়ারম্যান নিজেই নির্বাচনের তারিখ পেছানোর জন্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করেছেন, কিন্তু আবার মনোনয়নপত্রও বিক্রি করছেন। তাঁর দ্বৈতনীতি এ পরিস্থিতি তৈরি করেছে।’

মিজানুর রহমান বলেন, ‘আমরা এ নির্বাচনে অংশ নিতে চাই। বর্তমান সভাপতি নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যানের ওপর যে অভিযোগ এনেছেন, তা ঠিক নয়।’
এ বিষয়ে শাকিল মোহাম্মদ জানান, এক পক্ষের আপত্তির কারণে কেউ মনোনয়ন ক্রয় করেননি। সভাপতি যেসব অভিযোগ এনেছেন, তা সঠিক নয়।

এদিকে একই দিন সন্ধায় বণিক সমিতির সচিব আরজু মিয়া স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, মনোনয়নপত্র বিক্রি নিয়ে জটিলতা সৃষ্টি হওয়ায় আজ কোনো মনোনয়নপত্র বিক্রি হয়নি। তিনি নতুন করে তফসিল ঘোষণার জন্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করেছেন জেলা প্রশাসনের মাধ্যমে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন