বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের মে মাসের পর থেকে জেলায় করোনার সংক্রমণ উদ্বেগজনক হারে বাড়তে থাকে। এর মধ্যে গত জুন-জুলাই মাসে এক দিনে সবচেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হয়। ওই সময় দৈনিক শনাক্তের হার ৩০ থেকে ৪০-এর ঘরে থাকত। একই সঙ্গে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ উপজেলা পর্যায়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ও এর উপসর্গ নিয়ে মৃত্যুর সংখ্যাও বেশি ছিল।

তবে গত আগস্টের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে করোনার সংক্রমণ ও শনাক্তের হার কমতে থাকে। চলতি মাসে এই হার ১০–এর নিচে নেমে এসেছে। তবে আজই প্রথম শনাক্ত ৫ শতাংশের নিচে নামল এবং এটি এ বছরের মধ্যে সবচেয়ে কম।

আজ সকালে সিভিল সার্জন দপ্তরের নিয়মিত প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ৪ জনসহ জেলায় মোট করোনা শনাক্তের সংখ্যা ২৭ হাজার ৪৯৮। একই সময়ে জেলায় করোনায় আক্রান্ত একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মোট ৩০৭ জনের মৃত্যু হলো।

সিভিল সার্জন মো. কাইয়ুম তালুকদার প্রথম আলোকে বলেন, সারা দেশের মতো রাজশাহীতেও করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হচ্ছে। এখানে টিকা কার্যক্রম জোরেশোরে চলছে বলেই হয়তো করোনার সংক্রমণ কমে আসছে। মৃত্যুর সংখ্যাও কমেছে। তবে করোনার সংক্রমণ একজনের মধ্যে থাকলেও হাল ছেড়ে দেওয়া যাবে না। সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মেনেই চলতে হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন