বুড়িগঙ্গা তীরের দখল ঠেকাতে এবার বাগান

বিজ্ঞাপন
default-image

বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে পুনর্দখল ঠেকাতে দৃষ্টিনন্দন বাগান তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)। বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে ঢাকার কেরানীগঞ্জের হাসনাবাদ এলাকায় এমন উদ্যোগ নিয়েছে সংস্থাটি। গতকাল শুক্রবার সরেজমিন ঘুরে এমন চিত্রই দেখা গেছে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ঢাকার চারপাশের নদ-নদীর তীরে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে গত বছরের জানুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত অভিযান চালানো হয়। সে সময়ে বাংলাদেশ-চীন মৈত্রী সেতু-১ (পোস্তগোলা সেতু) হাসনাবাদ এলাকায় অভিযান চালিয়ে জব্দ করা মালামাল ২০ লাখ টাকায় বিক্রি করা হয়েছিল।

সর্বশেষ গত মঙ্গলবার একই স্থানে গিয়ে বিআইডব্লিউটিএর অভিযান পরিচালনাকারী দল দেখতে পান, নদীর জায়গা দখল করে সেখানে আবারও ইট, বালুর গদি তৈরি করা হয়। এই দফায় অবশ্য উচ্ছেদের খবর পেয়ে অবৈধ দখলদারেরা আগেই বেশির ভাগ মালামাল সরিয়ে নেন। পরে বাকি মালামাল জব্দ করে তা ৮ লাখ ৬০ হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গতকাল দুপুরে দেখা যায়, পোস্তগোলা সেতুর পশ্চিম পাড়ে কেরানীগঞ্জ অংশে দুটি এক্সকাভেটর দিয়ে মাটি সমান করার কাজ চলছে। একটি অংশে কিছু গাছ লাগানো হয়েছে। বাকি অংশে গাছ লাগানোর উপযোগী পরিবেশ তৈরি করতে এক্সকাভেটর দিয়ে কাজ হচ্ছে।

পুনর্দখল ঠেকাতে গত সপ্তাহে বুড়িগঙ্গার তীরে দুদিন অভিযান চালানো হয়েছে। এই দুই দিনে ১০৭টি স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। জব্দ করা মালামাল নিলামে বিক্রি হয় ১১ লাখ ২০ হাজার টাকা। আর নদীর জায়গায় স্থাপনা নির্মাণের অপরাধে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

বিআইডব্লিউটিএর যুগ্ম পরিচালক এ কে এম আরিফ উদ্দিন বলেন, পুনর্দখল ঠেকাতে হাসনাবাদ এলাকায় নান্দনিক পরিবেশ তৈরি করতে তাঁরা কাজ করছেন। সেখানে সবুজ বলয় গড়ে তোলার হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন