default-image

দেশের তিন জেলার ওপর দিয়ে বয়ে যাচ্ছে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ। এই শৈত্যপ্রবাহ থাকতে পারে আরও দু-এক দিন। এর পাশাপাশি পড়ছে মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা।

মধ্যরাত থেকে শুরু হওয়া এই কুয়াশা রাজধানীসহ দেশের কোথাও কোথাও দিনের বেলাতেও থাকবে। দুপুরের পর কুয়াশা কমবে। তবে দিন ও রাতে তাপমাত্রা বাড়ার সম্ভাবনা কম।

দেশের আবহাওয়ার সর্বশেষ পরিস্থিতি সম্পর্কে আবহাওয়া অধিদপ্তর এসব কথা জানিয়েছে। আজ শনিবার সকালে অধিদপ্তর বলছে, রাঙামাটি, মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল এবং পঞ্চগড় অঞ্চলের ওপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এই শৈত্যপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে।

বিজ্ঞাপন

রাজধানীতে গতকাল শুক্রবার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২৩ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আগামী ২৪ ঘণ্টায় রাত ও দিনের তাপমাত্রা অপরিবর্তিত থাকতে পারে উল্লেখ করে আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারা দেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। আগামী দুদিন মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারা দেশে মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা পড়তে পারে। তিন দিনের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে অধিদপ্তর জানিয়েছে, আগামী তিন দিনে রাতের তাপমাত্রা বাড়তে পারে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। দেশে গতকাল সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে শ্রীমঙ্গলে, ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রাঙামাটিতে তাপমাত্রা ছিল ১০ ডিগ্রি ও পঞ্চগড়ে ছিল ৯ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গতকাল দেশের কোথাও বৃষ্টি হয়নি।

আবহাওয়াবিদ বজলুর রশীদ প্রথম আলোকে বলেন, দেশের তিনটি অঞ্চলে তাপমাত্রা একটু কমেছে। তবে এই তাপমাত্রা আর কমার সম্ভাবনা কম। মধ্যরাত থেকে যে কুয়াশা পড়ছে, সেটি আরও দুই থেকে তিন দিন পড়বে। তিনি বলেন, বৃষ্টি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু না হওয়ার কারণে চারদিকে প্রচুর কুয়াশা পড়ছে। এই কুয়াশাও ধীরে ধীরে কমে আসবে।

বিজ্ঞাপন
পরিবেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন