default-image

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সীমিত আকারে ব্যাংকিং ব্যবস্থা চালু রাখার নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। আজ সোমবার নতুন নিয়ম অনুযায়ী লেনদেন হচ্ছে। সেই হিসাবে সকাল ১০টায় ব্যাংকিং কার্যক্রম শুরু হয়ে চলবে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত। এ ছাড়া লেনদেন-পরবর্তী আনুষঙ্গিক কার্যক্রম শেষ করার জন্য ব্যাংক খোলা থাকবে বেলা দুইটা পর্যন্ত।

default-image

আজ বিভিন্ন ব্যাংকে ঘুরে দেখা গেছে কিছু কিছু ব্যাংকে গ্রাহকের ভিড় বেশ কম। বেশির ভাগই ব্যাংকেই স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রবেশ সীমিত করে গ্রাহককে ব্যাংকের ভেতরে ঢোকানো হচ্ছে। আবার কোনো কোনো ব্যাংকে গ্রাহক উপস্থিতি বেশ অনেক।
বনানীর একটি বেসরকারি ব্যাংকের এক কর্মকর্তা জানান, সকাল থেকে আজকে গ্রাহকের ভিড় কম। স্বাস্থ্যবিধি মেনে গ্রাহককে ঢোকানো হচ্ছে। গ্রাহকের প্রবেশের ও বের হওয়ার পথ আলাদা করা হচ্ছে নিয়মিত গ্রাহকদের সঙ্গে ফোনেই কাজ সেরে নেওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। আশা করা যাচ্ছে, বেলা দুইটার মধ্যে ব্যাংকিং কার্যক্রম শেষ করা সম্ভব হবে।

default-image

বেলা ১১টার দিকে মতিঝিলে বেশ কয়েকটি ব্যাংক ঘুরে দেখা যায়। গ্রাহকের চাপ তেমন নেই। গ্রাহকের মুখে মাস্ক রয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রবেশ সীমিত রাখা হয়েছে।
তবে ইংলিশ রোডে বেসরকারি এক ব্যাংকের ব্যবস্থাপক জানান, কর্মী কম ও সংখ্যা কম হলেও গ্রাহক কম নয়, ফলে কিছুটা হিমশিম খেতে হচ্ছে। গ্রাহকেরা নিজে থেকে লাইনে দাঁড়াচ্ছেন না তাদের লাইনে দাঁড় করাতেও সময় লাগছে।

অন্যদিকে কিছু গ্রাহক জানালেন, ব্যাংকের ভেতরে ঢুকতে দেড় ঘণ্টা বাইরে দাড়িয়ে থাকতে হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
default-image

গতকাল প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, এই সাত দিন ব্যাংকের শাখার নিকটবর্তী স্থানে বসবাসকারী কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উপস্থিতির বিষয়টি অগ্রাধিকার দিতে হবে। এ ছাড়া কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উপস্থিতি ও কর্মপরিবেশের বিষয়টি সরকার ও বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা মেনে পালন করতে হবে। ফলে, ৫০ শতাংশ কর্মকর্তা-কর্মচারী দিয়েও অফিস পরিচালনা করা যাবে। এই সময়ে ব্যাংকের সব ধরনের লেনদেন চালু থাকবে।

ব্যাংক থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন