আগামী অর্থবছর বাজারে বিজিএপিএমইএ শিল্পপ্রতিষ্ঠান স্থাপন ও ব্যবসা পরিচালনায় প্রয়োজনীয় লাইসেন্সের মেয়াদ তিন বছর করার দাবি জানিয়েছে। তারা বলছে, শিল্পপ্রতিষ্ঠান স্থাপন, রপ্তানি ও ব্যবসা পরিচালনায় গতিশীলতা আনতে ট্রেড লাইসেন্স, বিডার অনুমোদন, কর শনাক্তকরণ নম্বর বা টিআইএন, বিআইএন, ইআরসি, ফায়ার লাইসেন্স, বন্ড লাইসেন্স, কাঁচামালের আমদানি প্রাপ্যতা, পরিবেশ ছাড়পত্রসহ ৩৩ ধরনের লাইসেন্স বা নিবন্ধন নিতে হয়। এসব লাইসেন্স বা নিবন্ধনের অধিকাংশই প্রতিবছর নবায়ন করতে হয়। তাতে অর্থ ও সময়—দুটিই ব্যয় হয়। অগ্রিম ফি দিয়ে লাইসেন্স বা নিবন্ধনগুলো তিন বছরের জন্য করা হলে সরকার একদিকে যেমন অগ্রিম অর্থ পেত, তেমনি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানগুলোর সময় ও অর্থের সাশ্রয় হতো।

এ ছাড়া প্রচ্ছন্ন রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের জন্য বন্ড সুবিধার পরিধি বাড়ানোর দাবি করেছে বিজিএপিএমইএ। তারা বলছে, পোশাক খাতের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্য উপ খাতের ব্যবসায়ীরা কয়েকটি স্থানে কারখানা স্থাপন করেছেন। তবে ধারাবাহিক বন্ডের সুবিধা না থাকায় তাদের প্রতিটি কারখানার বিপরীতে বন্ডের অনুমোদন নিতে হয়।

সরাসরি রপ্তানিকারকদের মতো প্রচ্ছন্ন রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের জন্যও ঠিকা কাজের সুবিধা চায় এই ব্যবসায়িক সংগঠন। তাদের বক্তব্য, পোশাক খাতের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্য উপ খাতের বন্ড লাইসেন্সধারী অনেক প্রতিষ্ঠান উৎপাদনক্ষমতার অতিরিক্ত ক্রয়াদেশ পেয়ে থাকে। অনেক ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানগুলোর পক্ষে সময়মতো পণ্য সরবরাহ করা কঠিন হয়ে পড়ে। আবার ক্রয়াদেশের অভাবে কিছু ক্ষুদ্র ও মাঝারি কারখানা ব্যবসা পরিচালনার ক্ষেত্রে সমস্যায় থাকে। তাই তৈরি পোশাকশিল্পের মতো এ খাতের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্য উপ খাতেও ঠিকা কাজের সুবিধা প্রদান করা হলে উভয় প্রতিষ্ঠান উপকৃত হবে।

জানতে চাইলে বিজিএপিএমইএর সাবেক সভাপতি আবদুল কাদের খান প্রথম আলোকে বলেন, বর্তমানে তৈরি পোশাকের প্রচুর ক্রয়াদেশ রয়েছে, এ কথা সত্য। তবে কাঁচামাল, জাহাজ ও ট্রাকভাড়া বেড়ে যাওয়ার কারণে পোশাক খাতের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্যের উৎপাদকদের মুনাফার হার কমে গেছে। সরাসরি রপ্তানিকারকেরা বাড়তি দাম দিচ্ছেন না। বর্তমান বাস্তবতায় এ খাতকে টিকিয়ে রাখতে হলে উৎসে কর হ্রাস করতে হবে।

আবদুল কাদের খান বলেন, তৈরি পোশাক রপ্তানিতে সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্য উপ খাতের বড় অবদান রয়েছে। পোশাক খাতের প্রতিষ্ঠানগুলো বর্তমানে ১২ শতাংশ করপোরেট কর দেয়। তাই সহযোগী খাত হিসেবে সরঞ্জাম ও মোড়ক পণ্য উপ খাতের জন্য একই হারে করপোরেট কর হওয়া উচিত।

অর্থনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন