বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ধরা যাক, এক ব্যক্তি ফেসবুকে বুস্টিং বা অন্য কোনো সেবা গ্রহণ করে ১০ ডলার পরিশোধ করল। কিন্তু ওই ব্যক্তি উৎসে ভ্যাট কর্তনকারী প্রতিষ্ঠান কিংবা ভ্যাট নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান নয়। তাই তাদের শনাক্ত করা কঠিন। এমন বেচাকেনার তথ্য এসব অনাবাসী প্রতিষ্ঠানের ভ্যাট রিটার্নে থাকে। তাই দৃশ্যত ভ্যাটের পরিমাণ কম। বাস্তবে বড় বড় প্রতিষ্ঠান এসব অনাবাসী প্রতিষ্ঠানের কাছে সেবার বিপরীতে মূল্য পরিশোধ করার সময় ভ্যাট কেটে রেখে সরকারি কোষাগারে জমা দেয়।

ঢাকা দক্ষিণ ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনার এস এম হুমায়ূন কবির প্রথম আলোকে বলেন, ‘এখন পর্যন্ত যা ভ্যাট পেয়েছি, তাতে আমরা খুশি। তবে আরও কয়েক মাস না গেলে মূল্যায়ন করা যাবে না, তারা সঠিক পরিমাণ ভ্যাট দিচ্ছে কি না। এত বড় বড় বিশ্বখ্যাত প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশের আইন প্রতিপালন করছে, তা অন্যদের জন্য অনুসরণীয়।’

এবার দেখা যাক, কে কত ভ্যাট দিল, কত ব্যবসা করল। ২৩ মে বিশ্বের বৃহত্তম সার্চ ইঞ্জিন গুগল সিঙ্গাপুরে নিবন্ধিত তাদের কোম্পানি এশিয়া প্যাসিফিক পিটিই লিমিটেডের নামে এ দেশে প্রথম অনাবাসী হিসেবে ভ্যাট নিবন্ধন নেয়। এই কোম্পানি বিজ্ঞাপন প্রচারসহ বিভিন্ন সেবা দিয়ে থাকে। মে, জুন, জুলাই, আগস্ট—এই ৪ মাসে ভ্যাট রিটার্ন দিয়ে মোট ৫ কোটি ৮৪ লাখ টাকা ভ্যাট দেয়। সেই হিসাবে, এই প্রতিষ্ঠান ওই ৪ মাসে প্রায় ৪০ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে।

গত ২৬ মে আমাজন ওয়েব সার্ভিস ইনকরপোরেশন একইভাবে ঢাকা দক্ষিণ ভ্যাট কমিশনারেটে ভ্যাট নিবন্ধন নেয়। তথ্য সংরক্ষণসহ নানা ধরনের ক্লাউড সেবা দিয়ে থাকে আমাজন ওয়েব সার্ভিস ইনকরপোরেশন। যুক্তরাষ্ট্রের সিয়াটলভিত্তিক প্রতিষ্ঠানটি প্রতি মাসেই ভ্যাট রিটার্ন দিয়ে মোট ১ কোটি ২৭ লাখ টাকা ভ্যাট দিয়েছে। এ সময়ে আট কোটি টাকার বেশি সেবা বিক্রি করেছে আমাজন।

বিশ্বের অন্যতম সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকের তিনটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান গত ১৩ জুন ভ্যাট নিবন্ধন নেয়। এই তিনটি প্রতিষ্ঠান হলো ফেসবুক আয়ারল্যান্ড লিমিটেড, ফেসবুক পেমেন্ট ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড এবং ফেসবুক টেকনোলজিস আয়ারল্যান্ড লিমিটেড। সবচেয়ে বড় অঙ্গপ্রতিষ্ঠান ফেসবুক আয়ারল্যান্ড লিমিটেডের ওয়েবসাইটে গিয়ে দেখা গেছে, এই প্রতিষ্ঠান অনলাইনে সামাজিক যোগাযোগ ও নেটওয়ার্ক সেবা দিয়ে থাকে। ফেসবুকের ওই তিনটি প্রতিষ্ঠান জুন, জুলাই, আগস্ট—এই তিন মাস ভ্যাট রিটার্ন দিয়েছে। সব মিলিয়ে ৭ কোটি ৬৭ লাখ টাকা ভ্যাট দিয়েছে। প্রায় ৫০ কোটি টাকার ব্যবসা করেছে ফেসবুক। আর মাইক্রোসফট গত আগস্টে প্রায় দুই কোটি টাকা ভ্যাট দিয়েছে।

অনাবাসী প্রতিষ্ঠানগুলো (যাদের এ দেশে স্থায়ী কার্যালয় নেই) এ দেশে বিজ্ঞাপন প্রচারসহ নিজেদের নানা ধরনের সেবা দিয়ে থাকে। এসব সেবার ওপর ১৫ শতাংশ হারে ভ্যাট বসে। এসব সেবা নিয়ে গ্রাহকেরা ক্রেডিট কার্ড বা অন্য কোনো উপায়ে ব্যাংকের মাধ্যমে অর্থ পরিশোধ করে থাকেন। দেশের বাইরে থেকেই মূল্য পরিশোধ করা হলেও তা ভ্যাট রিটার্নে দেখাতে হয়।

অর্থনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন