বিজ্ঞাপন

সংগঠনটি জানিয়েছে, ব্যক্তিশ্রেণির করমুক্ত আয়ের সীমা ৪ লাখ টাকায় উন্নীত করা উচিত, বর্তমানে যা ৩ লাখ টাকা, ভারতে যা ৫ লাখ রুপি। মূল্যস্ফীতি ও জীবনযাত্রার ব্যয় বিবেচনায় নিয়ে আগামী ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটে করমুক্ত আয়সীমা ৪ লাখ টাকা করার প্রস্তাব করেছে বিসিআই।

সংবাদ সম্মেলনে বিসিআই জানিয়েছে, ইলেকট্রিসিটি ট্রান্সমিশন লাইন নির্মাণের আন্তর্জাতিক দরপত্রে ঠিকাদার কর্তৃক স্টিল টাওয়ার ও অন্যান্য পণ্য বিদেশ থেকে আমদানি করলে উৎসে কর রাখা হয় না। অথচ দেশে স্থাপিত শিল্পকারখানা থেকে উৎপাদিত স্টিল টাওয়ার এবং অন্যান্য পণ্য সরবরাহের ক্ষেত্রে ৭ দশমিক ৫ শতাংশ উৎসে আয়কর কেটে রাখা হচ্ছে। বৈষম্য দূর করতে দেশীয় শিল্পপ্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত পণ্য সরবরাহের ক্ষেত্রে উৎসে কর রহিত করার দাবি জানান আনোয়ার-উল আলম চৌধুরী।

বিসিআই বলছে, বাজেটে ৫ শতাংশ অগ্রিম আয়করের (এআইটি) প্রস্তাব ব্যবসায়িক খরচ বাড়িয়ে দেবে। অগ্রিম আয়কর (এআইটি) বিলুপ্ত করার প্রস্তাব দেওয়া হলেও বাজেটে তার প্রতিফলন দেখা যায়নি। পদ্ধতিগত জটিলতা নিরসনে অগ্রিম আয়কর বাতিলের প্রস্তাব করেছে বিসিআই।

অর্থনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন