default-image

ফ্ল্যাট বা জমি কেনার পরিকল্পনা করছেন? করোনা সংক্রমণের ভয়ে প্রতিষ্ঠানে গিয়ে গিয়ে খোঁজ করা সম্ভব হচ্ছে না। ভাবছেন কীভাবে কী করবেন? আপনার কাজটা সহজ করে দিতে প্রথম আলো ডিজিটাল আয়োজন করেছে ডিবিএল সিরামিকস অনলাইন আবাসন মেলা। আপনার স্মার্টফোন বা কম্পিউটার ব্যবহার করেই মেলায় অংশ নিয়ে কাঙ্ক্ষিত ফ্ল্যাট বা জমি খুঁজে নিতে পারবেন খুব সহজেই।

‘ঘরে বসেই ঘর খুঁজুন’ শিরোনামে সাত দিনের অনলাইন আবাসন মেলা আজ শনিবার শুরু হয়েছে। মেলার কৌশলগত অংশীদার আবাসন ব্যবসায়ীদের সংগঠন রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড হাউজিং অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (রিহ্যাব)। প্রধান পৃষ্ঠপোষক ডিবিএল সিরামিকস। সহযোগিতায় রয়েছে বিএসআরএম।

এবারের অনলাইন আবাসন মেলায় ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, কুমিল্লা ও বগুড়ার ৬০টি আবাসন অংশ নিয়েছে। দেশের ৫৬টি স্থানের ৯ হাজার ১০৫টি ফ্ল্যাট, ৪ লাখ ১০ হাজার কাঠা জমি ও ১৫ লাখ বর্গফুটের বাণিজ্যিক স্পেস বা জায়গা বিক্রির জন্য নিয়ে এসেছে প্রতিষ্ঠানগুলো।

বিজ্ঞাপন
এবারের মেলায় ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, কুমিল্লা ও বগুড়ার ৬০টি আবাসন অংশ নিয়েছে। দেশের ৫৬টি স্থানের ৯ হাজার ১০৫টি ফ্ল্যাট, ৪ লাখ ১০ হাজার কাঠা জমি ও ১৫ লাখ বর্গফুটের বাণিজ্যিক স্পেস বা জায়গা বিক্রির জন্য নিয়ে এসেছে প্রতিষ্ঠানগুলো।

তৃতীয়বারের মতো আয়োজিত এই অনলাইন মেলায় অংশ নিয়ে আগ্রহী ক্রেতারা আবাসন প্রতিষ্ঠানের প্রকল্পগুলোর বিস্তারিত দেখতে পারবেন। চাইলে অনলাইনেই প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে যোগাযোগ করা যাবে। এ ছাড়া অনলাইনে নির্ধারিত সাইটে গিয়ে সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত সরাসরি চ্যাট করে নানা তথ্য জানা যাবে। মেলা শেষ হবে ২৯ জানুয়ারি।

রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলের ওয়েসিসে আজ শনিবার বিকেলে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অনলাইন আবাসন মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়। এতে রিহ্যাব নেতারা ছাড়াও বিভিন্ন আবাসন প্রতিষ্ঠান, আয়োজনের পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

রিহ্যাবের সভাপতি আলমগীর শামসুল আলামিন বলেন, ‘করোনা মহামারির কারণে আমরা অনলাইনের গুরুত্ব বুঝতে পেরেছি। যেসব আবাসন প্রতিষ্ঠানের ডিজিটালে প্রস্তুতি ছিল না, তারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আর যাদের প্রস্তুতি ছিল, তারা ভালো করেছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘রিহ্যাব থেকে কীভাবে অনলাইন আবাসন মেলা ও বিপণন করা যায়, সেটি নিয়ে প্রথম আলোর সঙ্গে আমরা আলাপ-আলোচনা করব।’

অনলাইন আবাসন মেলার ঠিকানা abashonmela.pro

প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমান বলেন, দুনিয়াটা বদলে যাচ্ছে। গত ১০ মাসে করোনাকালে সেটি আরও দ্রুত হয়েছে। বিশ্বজুড়ে ছাপা পত্রিকা বড় সংকটে পড়ে গেছে। পাঠক চলে যাচ্ছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ও অনলাইনে। একইভাবে ব্যবসায়ও অনলাইনের গুরুত্ব ব্যাপকভাবে বেড়ে যাচ্ছে। তিনি বলেন, বস্তুনিষ্ঠ ও দলমত নিরপেক্ষ সংবাদ প্রকাশ করে যাবে প্রথম আলো। আর ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের ডিজিটাল সব সমস্যার সমাধান দিচ্ছে প্রথম আলো ডিজিটাল।

মেলার প্রধান পৃষ্ঠপোষক ডিবিএল গ্রুপের উপব্যবস্থাপনা পরিচালক (ডিএমডি) এম এ কাদের বলেন, বিশ্বজুড়ে মহামারি করোনার বিষাদময় অধ্যায় চলছে। স্বাভাবিক জীবন ও ব্যবসা-বাণিজ্যে পড়েছে মারাত্মক প্রভাব। অবশ্য সব সংকটেই কিছু সম্ভাবনাও দেখা দেয়। দেশে করোনাকালে অনলাইন ব্যবসায় ভালো প্রবৃদ্ধি হয়েছে। মানুষের জীবন আরও বেশি অনলাইনমুখী হয়েছে। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত মোবাইল ফোন এখন মানুষের নিত্যসঙ্গী। এমন পরিস্থিতিতে অনলাইন আবাসন মেলা আগের চেয়ে সফল হবে। মানুষও উপকার পাবে বলে প্রত্যাশা করেন তিনি।

বিপ্রপার্টি ডটকমে হেড অব মার্কেটিং মাহজাবীন চৌধুরী বলেন, ডিজিটাল ব্যবস্থা অবহেলা করার আর কোনো সুযোগ নেই। মানুষ এখন কোনো পণ্য কিনতে গেলে আগে অনলাইনে ঘুরে খোঁজখবর নিয়ে তারপর কেনেন। তথ্য-উপাত্তের জন্য আত্মীয়স্বজনের ওপরের নির্ভরশীলতাও অনলাইন নিয়ে নিয়েছে।

বিজ্ঞাপন
আপনার স্মার্টফোন বা কম্পিউটার ব্যবহার করেই মেলায় অংশ নিয়ে কাঙ্ক্ষিত ফ্ল্যাট বা জমি খুঁজে নিতে পারবেন খুব সহজেই।

অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রথম আলোর হেড অব ডিজিটাল বিজনেস জাবেদ সুলতান মেলার নানা দিক তুলে ধরেন। প্রথম আলো ডিজিটালের মাধ্যমে আবাসন প্রতিষ্ঠানগুলো কী ধরনের সুবিধা পেতে পারে, সে তথ্যও তুলে ধরেন তিনি।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন এশিয়ান পেইন্টসের হেড অব মার্কেটিং জোনায়েদ কবীর, এনার্জিপ্যাকের হেড অব সেলস অ্যান্ড সার্ভিস মাসুম পারভেজ। সবশেষে গান গেয়ে শোনান দিনাত জাহান মুন্নী।

আবাসন মেলার সহযোগী হিসেবে আছে র‌্যাংগস প্রপার্টিজ, সানমার প্রপার্টিজ, আনোয়ার ল্যান্ডমার্ক, ক্রিডেন্স, রিচমন্ড ডেভেলপার লিমিটেড, পূর্বাচল মেরিন সিটি, কোরাল লিফ প্রপার্টিজ, অ্যাসিউর গ্রুপ, বিপ্রপার্টি ডট কম, এশিয়ান পেইন্টস, লিফটসল, আইডিএলসি ও ট্রান্সকম ডিজিটাল।

অনলাইন আবাসন মেলার ঠিকানা abashonmela.pro

শিল্প থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন