default-image

গ্রাহকদের ভালো সাড়া পাওয়ার মধ্য দিয়ে শেষ হলো প্রথম আলো ডিজিটাল আয়োজিত ডিবিএল সিরামিকস অনলাইন আবাসন মেলা। গত বৃহস্পতিবার সাত দিনের এই মেলা শেষ হয়েছে। এবারের মেলায় আবাসন খাতের ৬০টি প্রতিষ্ঠান অংশ নেয়।

আয়োজকেরা জানান, গ্রাহকদের কাছ থেকে গতবারের চেয়ে এবারের মেলায় ১০-১৫ শতাংশ বেশি সাড়া পাওয়া গেছে। সাত দিনে মেলার ওয়েবসাইট ভিজিট করেছেন ৩ লাখ ৭২ হাজার ৯৫৬ জন গ্রাহক। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ফ্ল্যাট প্রকল্পের খোঁজ নিয়েছেন ১ লাখ ৪৪ হাজার ৬১৩ জন। আর প্লট প্রকল্পের খোঁজ নেন ১ লাখ ২২ হাজার ৯২১ জন। মেলা চলাকালে গ্রাহকদের কাছ থেকে আবাসন প্রতিষ্ঠানগুলো ১ হাজার ৮৮০টি ই-মেইল পেয়েছে। লাইভ চ্যাটে ফ্ল্যাট ও প্লটের খোঁজখবর নিয়েছেন ৪ হাজারের বেশি মানুষ।

‘ঘরে বসেই ঘর খুঁজুন’ শিরোনামে তৃতীয়বারের মতো অনলাইন আবাসন মেলা শুরু হয় ২৩ জানুয়ারি। এবারের মেলায় ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, কুমিল্লা ও বগুড়ার ৫৬টি জায়গার ৯ হাজার ১০৫টি ফ্ল্যাট, ৪ লাখ ১০ হাজার কাঠা জমি ও ১৫ লাখ বর্গফুটের বাণিজ্যিক স্পেস বা জায়গা বিক্রির জন্য নিয়ে আসে আবাসন প্রতিষ্ঠানগুলো।

বিজ্ঞাপন

এই মেলার কৌশলগত অংশীদার ছিল আবাসন ব্যবসায়ীদের সংগঠন রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড হাউজিং অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (রিহ্যাব)। প্রধান পৃষ্ঠপোষক হয় ডিবিএল সিরামিকস। আয়োজনে সহযোগিতা করে বিএসআরএম। সহযোগী হিসেবে ছিল র‌্যাংগস প্রপার্টিজ, সানমার প্রপার্টিজ, আনোয়ার ল্যান্ডমার্ক, ক্রিডেন্স, রিচমন্ড, পূর্বাচল মেরিন সিটি, কোরাল লিফ প্রপার্টিজ, অ্যাসিউর গ্রুপ, বিপ্রপার্টি, ট্রান্সকম ডিজিটাল, এশিয়ান পেইন্টস, লিফটসল ও আইডিএলসি।

সোনারগাঁও হোটেলে ২৩ জানুয়ারি স্বাস্থ্যবিধি মেনে মেলার উদ্বোধন হয়। অনুষ্ঠানে রিহ্যাব নেতারা ছাড়াও বিভিন্ন আবাসন প্রতিষ্ঠান, পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বক্তব্য দেন রিহ্যাব সভাপতি আলমগীর শামসুল আলামিন, ডিবিএল গ্রুপের উপব্যবস্থাপনা পরিচালক (ডিএমডি) এম এ কাদের, প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান প্রমুখ।

শিল্প থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন