default-image

রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর সহায়তায় আরও ১০ কোটি ডলার দিতে যাচ্ছে বিশ্বব্যাংক। গত বুধবার বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে বিশ্বব্যাংকের এ–সংক্রান্ত চুক্তি হয়েছে। শিবিরে উন্নত পানি ও পয়োনিষ্কাশনসেবা নিশ্চিত, দুর্যোগ–সহনীয় অবকাঠামো নির্মাণে এই অর্থ দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক।

রোহিঙ্গাদের সহায়তায় চলমান ইমার্জেন্সি মাল্টিসেক্টর রোহিঙ্গা ক্রাইসিস রেসপনস প্রজেক্ট বা রোহিঙ্গা সংকট মোকাবিলায় বহুমুখী জরুরি সহায়তা প্রকল্পের আওতায় এই অর্থ দেবে বিশ্বব্যাংক। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, এই অর্থে শিবিরের রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর পাশাপাশি স্থানীয় জনগোষ্ঠীও উপকৃত হবে। এতে ৩ লাখ ৬৫ হাজার মানুষ সুপেয় পানি পাবে এবং ১ লাখ ৭১ হাজার ৮০০ মানুষ উন্নত পয়োনিষ্কাশন–সুবিধা পাবে।
সরকারের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের অতিরিক্ত সচিব সাহাবউদ্দিন পাটওয়ারি এবং বিশ্বব্যাংক বাংলাদেশ ও ভুটানের কান্ট্রি ডিরেক্টর মার্সি মিয়াং টেমবন এই চুক্তিতে সই করেন।

এই ১০ কোটি ডলার অনুদানের মধ্য দিয়ে এই প্রকল্পে বিশ্বব্যাংকের মোট অঙ্গীকারের পরিমাণ দাঁড়াল ২৬ কোটি ৫০ লাখ ডলার। আর রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে বিশ্বব্যাংক এ পর্যন্ত মোট ৪৮ কোটি ডলার অনুদান দিয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0