default-image

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি বেক্সিমকো সিনথেটিকস লিমিটেড পুঁজিবাজার থেকে ডিলিস্ট (তালিকাচূত্য) হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। উৎপাদন বন্ধ এবং দীর্ঘ মেয়াদি পুঞ্জীভূত লোকসানে থাকায় বস্ত্র খাতের এই কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদ মনে করছে পুঁজিবাজার থেকে ডিলিস্ট হওয়া উচিত। আজ মঙ্গলবার ডিএসইর ওয়েবসাইট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন

ওয়েবসাইট সূত্রে আরও জানা যায়, ২০১৩ সালের পর থেকে বেক্সিমকো সিনথেটিকস আর লভ্যাংশ ঘোষণা করতে পারেনি। ওই সময় থেকে কোম্পানির ব্যবসা পরিচালনা করতে অনেক কষ্ট হয়েছে কারণ স্বল্প মূল্যে কোম্পানিটি বিদেশ থেকে ডিটিওয়াই আমদানি করতে ব্যর্থ হয়। সেই সঙ্গে দেশেও উৎপাদনের জন্য ইয়ার্ন সহজলভ্য ছিল না। এ কারণে গত সাত বছর পর্যাপ্ত উৎপাদন করতে পারেনি কোম্পানিটি। প্রচুর লোকসানের মুখে পড়ে। এর ফলে গত কয়েক বছরে কোম্পানিটির শেয়ার ফেসভ্যালুর নিচে লেনদেন হয়েছে। অবশেষে কোম্পানিটি তাদের উৎপাদন বন্ধ করে দিয়েছে।

default-image

কোম্পানিটি জানায়, আইন অনুযায়ী কোম্পানির সব শ্রমিক কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন বকেয়া পরিশোধ করা হয়েছে। এই পরিস্থিতে কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদ ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ (সিএসই) থেকে ডিলিস্ট হওয়া উচিত বলে মনে করছে।

এর আগে গতকাল সোমবার এক নির্দেশনায় শেয়ারবাজারে কোম্পানিটির লেনদেন স্থগিত করে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। ওই নির্দেশনায় বলা হয় আজ থেকে শেয়ারবাজারে কোম্পানিটির লেনদেন বন্ধ থাকবে। তবে কোনো কোম্পানির নিজ থেকে স্টক এক্সচেঞ্জ থেকে ডিলিস্ট হওয়ার কোনো নিয়ম নেই। তাই বেক্সিমকো সিনথেটিকস বিএসইসির কাছে কাছে এ বিষয়ে সুস্পষ্ট গাইডলাইন চেয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন