বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ইলন মাস্ক জানিয়েছেন, গ্রাইমসের থেকে ‘সেমি–সেপারেটেড’ হয়েছেন তিনি। তাঁদের এক বছর বয়সী শিশুসন্তান এক্স অ্যাশ এ টুয়েলভকে দুজন মিলেই দেখাশোনা করবেন। তিনি বলেন, ‘আমরা সেমি–সেপারেটেড হয়েছি, তবে একে অপরকে ভালোবাসি, একে অপরের সঙ্গে প্রায়ই দেখা করি। স্পেসএক্স ও টেসলাতে আমার কাজের জন্য আমাকে বেশির ভাগ সময় টেক্সাসে বা বিদেশে ভ্রমণে থাকতে হয়। অন্যদিকে, গ্রাইমসের কাজ লস অ্যাঞ্জেলেসে। গ্রাইমস এখনো আমার আর বেবি এক্সের পাশের কক্ষেই থাকছেন।’

২০১৮ সালের মে মাসে মার্কিন ধনকুবের ইলন মাস্কের সঙ্গে গ্রাইমসের সম্পর্ক শুরু হয়। ইলন মাস্কের আরও ছয় সন্তান রয়েছে। তিনি তিনবার বিয়ে করেছেন। এর মধ্যে একজনকেই দুবার বিয়ে করেছেন। তবে ৩৩ বছর বয়সী গ্রাইমসের এই একটাই সন্তান।

ইলন মাস্কের জীবনে এসেছিলেন যাঁরা

ইলন মাস্ক এর আগে ২০০০ সালে লেখক জাস্টিন উইলসনকে বিয়ে করেন। এই দম্পতির পাঁচ পুত্রসন্তান রয়েছে। ২০০৪ সালে জন্ম নেয় যমজ সন্তান গ্রিফিন ও জেভিয়ার। এর পরের বছর একসঙ্গে জন্ম নেয় তিন ছেলে ড্যামিয়ান, স্যাক্সন ও কাই। ২০০৮ সালে বিচ্ছেদ হয় ইলন ও জাস্টিনের।

জাস্টিনের সঙ্গে বিচ্ছেদের পর ২০১০ সালে ইলন মাস্ক ব্রিটিশ অভিনেত্রী তালুলা রিলিকে বিয়ে করেছিলেন। দুই বছর পর তাঁদের সম্পর্কের অবসান ঘটে। তবে ২০১৩ সালে তাঁরা আবার বিয়ে করেন। এর তিন বছর পর আবার তাঁদের বিচ্ছেদ হয়। এর মধ্যে অভিনেত্রী অ্যাম্বার হার্ডের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান ইলন। ২০১৫ সালে অভিনেতা জনি ডেপের সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদের পর অ্যাম্বার হার্ডের জীবনে আসেন ইলন মাস্ক।

২০১৭ সালে আলাদা হয় অ্যাম্বার আর ইলনের পথ। এরপর ২০১৮ সালে গ্রাইমসের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ইলন মাস্কের। ২০২০ সালে তাঁদের ঘরে আসে পুত্র এক্স অ্যাশ এ টুয়েলভ।

ফোর্বসের তালিকা অনুযায়ী বর্তমানে বিশ্বের দ্বিতীয় শীর্ষ ধনী ইলন মাস্ক। তাঁর মোট সম্পদ ১৯ হাজার ৪০০ কোটি মার্কিন ডলার। কয়েক বছর ধরেই সম্পদের বেশি উত্থান দেখেন ইলন মাস্ক।

বিশ্ববাণিজ্য থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন