বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

উত্তর

ক. ডিপ্লয়েড জীবে আকার, আকৃতি, ক্রোনোমিয়ারের অবস্থান ও সংখ্যা প্রভৃতি দিক হতে দুটি ক্রোমোজোম একই রকম হলে এই দুটি ক্রোমোজোমকে একত্রে হোমোলোগাস ক্রোমোজোম বলে।

খ. শুক্রাণু ও ডিম্বাণুর নিলয়ের ফলে ডিপ্লয়েড জাইগোট উৎপন্ন হয়। এ জাইগোট হতে প্রাণের সৃষ্টি হয় এবং জাইগোট বিভাজিত হয়ে লগ্ন কোষ সৃষ্টি করে। এভাবে শিশু জীবের দেহ গঠিত হয়। আর এ কারণেই জাইগোটকে প্রাণীর সূচনালগ্ন বলা হয়।

গ. উদ্দীপকে P বিভাজনটি মাইটোসিস এবং Q বিভাজনটি মিয়োসিস। আর এ দুই ধরনের বিভাজনের মধ্যে Q বিভাজন (মিয়োসিস) বৈচিত্র্যতা সৃষ্টি করে।

মিয়োসিস কোষ বিভাজনের প্রোফেজ-১–এর প্যাকাইটিন উপপর্যায়ে ক্রসিংওভারের সূচনা ঘটে। পরবর্তী সময়ে ক্রসিংওভারের ফলে ক্রোমোজোমের খণ্ডাংশের বিনিময় ঘটে। ফলে ক্রোমোজোমে নতুন জিন সংযোজন হয়। আর জিনের সজ্জা এবং অবস্থানের কারণে প্রতি অপত্য জীবে বংশপরম্পরায় ভিন্নতা আসে। ফলে নতুন প্রজন্মেও বৈচিত্র্যতা আসে। মাইটোসিসে এ ধরনের কোনো বৈচিত্র্যতা সৃষ্টির ঘটনা ঘটে না। কারণ, মাইটোসিসে কোনো ক্রসিংওভার সংঘটিত হয় না। সুতরাং বলা যায়, মিয়োসিস কোষ বিভাজনই বৈচিত্র্যতা সৃষ্টি করে।

ঘ. Pteris-এর জনুক্রমে উদ্দীপকের P (মাইটোসিস) এবং Q (মিয়োসিস) উভয় বিভাজনই গুরুত্বপূর্ণ।

Pteris উদ্ভিদে জনুক্রম বিদ্যমান। কারণ, এখানে স্পোরোফাইটিক জনুর সাথে গ্যামেটোফাইটিক জনুর পর্যাক্রমিক আবর্তন ঘটে। Pteris ডিপ্লয়েড উদ্ভিদ। এটি হতে উৎপন্ন সোরাস, সোরাসে অবস্থিত স্পোরাঞ্জিয়াম ও স্পোরঞ্জিয়ামের মধ্যে অবস্থিত স্পোর মাতৃকোষও ডিপ্লয়েড। স্পোর মাতৃকোষ মিয়োসিস প্রক্রিয়ায় বিভাজিত হয়ে হ্যাপ্লয়েড (n) স্পোর উৎপন্ন করে, যা গ্যামেটোফাইটের প্রথম ধাপ। এ হ্যাপ্লয়েড স্পোর অঙ্কুরিত হয়ে হ্যাপ্লয়েড প্রোথ্যালাস সৃষ্টি করে। প্রোথ্যালাস সহবাসী। এতে সৃষ্ট আর্কিগোনিয়াম ও অ্যান্থেরিডিয়াম হ্যাপ্লয়েড। আর্কিগোনিয়াম ও অ্যান্থেরিডিয়ামের মধ্যে উৎপন্ন শুক্রাণু ও ডিম্বাণুও হ্যাপ্লয়েড। এদের নিষেকের ফলে সৃষ্টি হয় ডিপ্লয়েড স্পোর (2n), যা স্পোরোফাইটিক পর্যায়ের প্রথম ধাপ। উস্পোর অঙ্কুরিত হয়ে ক্রমাগত মাইটোসিস প্রক্রিয়ায় বিভাজিত হয়ে সৃষ্টি হয় নতুন স্পোরোফাইটিক Pteris উদ্ভিদ।

ওপরের আলোচনা হতে প্রতীয়মান হয় যে Pteris স্পোরোফাইটিক ও গ্যামেটোফাইটিক পর্যায় সম্পন্ন করতে মিয়োসিস ও মাইটোসিস উভয় ধরনের কোষ বিভাজনেরই প্রয়োজন হয়। সুতরাং Pterisএর জনুক্রম p (মাইটোসিস) ও Q (মিয়োসিস) বিভাজন গুরুত্বপূর্ণ।

শিক্ষা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন